রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের দৌড়ে যশবন্ত সিনহা, অভিনন্দন জানালেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

0

নয়াদিল্লি: সব জল্পনার অবসান হয়ে গেল মঙ্গলবার। বিজেপি-বিরোধী দলগুলির তরফে ২০২২ সালের রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে সর্বসম্মত প্রার্থী করা হল যশবন্ত সিনহাকে। তাঁকে প্রার্থী হিসেবে ঘোষণার পরেই প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীকে অভিনন্দন জানালেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রীসভায় একাধিক দায়িত্ব সামলেছিলেন প্রাক্তন আমলা যশবন্ত। তবে বিজেপির সঙ্গে মতানৈক্যের জেরে গত বছরের ১৩ মার্চ তিনি যোগ দেন তৃণমূলে। সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেসের সহ-সভাপতি হিসেবে নিযুক্ত হন।

যশবন্তকে অভিনন্দন মমতার

বিরোধীদের তরফে আনুষ্ঠানিক ভাবে যশবন্তের নাম ঘোষণার আগেই রাষ্ট্রপতি পদের দৌড়ে তিনি যে নামতে চলেছেন, তার ইঙ্গিত দেন যশবন্ত নিজেই। তৃণমূল থেকে অব্যাহতি চেয়ে মমতার উদ্দেশে টুইটারে লেখেন, তৃণমূলে যোগ দিতে পেরে তিনি মমতার প্রতি কৃতজ্ঞ। তবে এখন বৃহত্তর জাতীয় স্বার্থে তিনি তৃণমূলের সহ-সভাপতির পদ থেকে অব্যাহতি চাইছেন। তাঁর আশা, তাঁর এই ইচ্ছায় অনুমোদন দেবেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী।

এ দিন ১৮টি দলের নেতারা বিরোধী জোটের সর্বসম্মত প্রার্থী হিসেবে যশবন্তের নাম ঘোষণা করেন। এর পরই মমতা টুইটারে লেখেন, “আসন্ন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য সকল প্রগতিশীল বিরোধী দল সমর্থিত সর্বসম্মত প্রার্থী হওয়ার জন্য যশবন্ত সিনহাকে অভিনন্দন জানাই আমি। তিনি সম্মাননীয় এবং বিচক্ষণ মানুষ। তিনি অবশ্যই আমাদের মহান জাতীয় মূল্যবোধের প্রতি দায়বদ্ধ থাকবেন”।

এক নজরে যশবন্ত সিনহা

জন্ম: ৬ নভেম্বর, ১৯৩৭

পড়াশোনা: ১৯৫৮ সালে পটনা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে রাষ্ট্রবিজ্ঞানে স্নাতকোত্তর। ১৯৫৮-১৯৬০ পর্যন্ত ওই বিশ্ববিদ্যালয়েই শিক্ষকতা।

আইএএস: ১৯৬০ সালে যোগ দেন আইএএস-এ। তার পর থেকে টানা ২৪ বছর ধরে বিভিন্ন পদে কাজ করেছেন।

রাজনীতি: ১৯৮৪ সালে আইএএস থেকে ইস্তফা। জনতা পার্টিতে যোগদান। ১৯৮৬ সালে দলের জাতীয় সাধারণ সম্পাদক, ১৯৯৮-এ রাজ্যসভার সাংসদ।

মন্ত্রিত্ব: চন্দ্র শেখরের মন্ত্রীসভায় অর্থমন্ত্রী (নভেম্বর, ১৯৯০-জুন, ১৯৯১)। ১৯৯৮ সালে অটলবিহারী বাজপেয়ী সরকারের অর্থমন্ত্রী।

আরও পড়তে পারেন:

ভুয়ো ক্রিপ্টোকারেন্সি এক্সচেঞ্জ! ভারতীয় বিনিয়োগকারীদের গচ্চা হাজার কোটি টাকা, বলছে রিপোর্ট

রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে প্রার্থী যশবন্ত সিনহা, সিদ্ধান্ত বিরোধী জোটের

১০ মিনিটেই শেষ! প্রাথমিক নিয়োগের তদন্তে সিবিআই নিয়ে ফের শুনানি বৃহস্পতিবার

‘আড়াই বছরে তৃতীয় বার সরকার ফেলে দেওয়ার ষড়যন্ত্র’, রাতে উদ্ধব ঠাকরের সঙ্গে বৈঠক শরদ পওয়ারের

ছাত্রনেতা আনিস খানের রহস্যমৃত্যুর তদন্তে সিটে আস্থা হাইকোর্টের, সিবিআই চেয়ে ডিভিশন বেঞ্চে যাচ্ছে পরিবার

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন