supreme court

ওয়েবডেস্ক: দেশে তুমুল পরিস্থিতি তৈরি করেছে শীর্ষ আদালতের প্রধান বিচারপতির সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করে ৪ কর্মরত বিচারপতির সাংবাদিক সম্মেলন। সেই বিতর্ক এ বার এক অন্য মাত্রা পেল। ৪ অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতিও শীর্ষ আদালতের প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্রকে সম্মিলিত ভাবে এক চিঠি দিয়ে তাঁর সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করলেন। তাঁদের মধ্যে এক জন অবসর গ্রহণ করেছেন শীর্ষ আদালত থেকে। বাকি ৩ জন অবসর নিয়েছেন দেশের উচ্চ আদালত থেকে।

আরও পড়ুন: সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতির বাসভবনের সামনে হঠাৎ হাজির মোদীর মুখ্যসচিব, কী উদ্দেশ্যে?

জানা গিয়েছে, অবসরপ্রাপ্ত এই বিচারপতিরা হলেন পি বি সাবন্ত, এ পি শাহ, কে চন্দ্রু এবং এইচ সুরেশ। বিচারব্যবস্থার বন্টন যে প্রচলিত রীতি না মেনে বাছাই কিছু বিচারপতির দরবারে পাঠিয়ে দেওয়া অন্যায়, সে কথাই চিঠিতে জানিয়েছেন তাঁরা।

আরও পড়ুন: ‘যা করেছি বিচারব্যবস্থার স্বার্থেই করেছি’, বললেন বিচারপতি কুরিয়ান জোসেফ

তবে এই অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতিরা তাঁদের চিঠিতে কেবলই শীর্ষ আদালতের প্রধান বিচারপতির বিরুদ্ধে মত ব্যক্ত করেননি। এই পরিস্থিতিতে যে বিচারব্যবস্থার ক্ষতি হচ্ছে, সে বিষয়টি নিয়েও যথেষ্ট উদ্বিগ্ন তাঁরা। “যে সব মামলা অসমাপ্ত অবস্থায় পড়ে আছে, তার একটা নিষ্পত্তি প্রয়োজন। তাই আমাদের আর্জি, ৫ জন বরিষ্ঠ বিচারপতির নেতৃত্বে একটি সাংবিধানিক বেঞ্চ গঠন করে সেই সব মামলা যত দ্রুত সম্ভব, সমাপ্ত করা হোক”, চিঠিতে জানিয়েছেন এই অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতিরা।

আরও পড়ুন: ‘গণতন্ত্র বাঁচাতে বিচারব্যবস্থা সুরক্ষিত রাখুন’, নজিরবিহীন সাংবাদিক সম্মেলনে আর্জি শীর্ষ আদালতের চার বিচারপতির

১২ জানুয়ারি, শুক্রবার সকালে বিচারব্যবস্থা সুরক্ষিত রাখতে প্রধান বিচারপতির বিরুদ্ধে নজিরবিহীন সাংবাদিক সম্মেলন করেন শীর্ষ আদালতের চার বিচারপতি জে চেলামেশ্বর, রঞ্জন গগই, এমবি লকুর এবং কুরিয়ান জোসেফ। বৈঠকে তাঁরা জানিয়ে দেন সুপ্রিম কোর্টের কার্যকলাপ ঠিকঠাক চলছে না। এই ব্যাপারে দীপক মিশ্রও তাঁদের পরামর্শকে বিশেষ পাত্তা দেননি।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here