minor

এটাওয়া: আবার উত্তরপ্রদেশ, আবার এটাওয়া, আবার নাবালিকা, আবার বিয়ের আসর! মাত্র তিন দিনের মাথায়ই ফিরে এল নাবালিকা ধর্ষণের দুঃসহ স্মৃতি। দু’টি ঘটনার মধ্যে কী অদ্ভুত মিল! দু’টি ঘটনাই ঘটল বিয়ের আসরে।

বৃহস্পতিবার রাতে ন’বছরের এক নাবালিকাকে ধর্ষণ করে খুন করেছে এক ব্যক্তি। ঘটনার পরেই অভিযুক্ত পিন্টু কুমারকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ওই নাবালিকার বাবার অভিযোগের ভিত্তিতে তাকে গ্রেফতার করা হয়। তার বিরুদ্ধে পস্কো ধারায় মামলা করা হয়েছে।

এটাওয়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সঞ্জয় কুমার বলেন, “জেলার আলিগঞ্জ অঞ্চলের কেলঠা গ্রামে বাড়ি ওই নাবালিকার। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার রাত দশটা নাগাদ। ওই সময়ে ওই নাবালিকার বাবা মা, পাশের বাড়িতে বিয়ের অনুষ্ঠানে গিয়েছিলেন। সেখানেই মেয়েকে দেখতে না পেয়ে সন্দেহ হয় তাদের।” তিনি আরও বলেন, “শুক্রবার ভোর তিনটে নাগাদ তাদের বাড়ি থেকে একশো মিটার দূরে একটা জায়গায় ওই নাবালিকার দেহ উদ্ধার হয়।”

আরও পড়ুন: ফের যোগীর রাজ্যে নারকীয় ঘটনা, মেয়েকে বন্ধু-সহ ধর্ষণ করল বাবা

পুলিশ জানিয়েছে, তদন্তে জানা যায়, বিয়ের বাড়িতে রাঁধুনিদের দলে ছিল পিন্টু। কিন্তু রাত দশটা নাগাদ মদ্যপানের জন্য বসেছিল সে, তখন ওই নাবালিকার থেকে জল চেয়ে পাঠায়। ওই নাবালিকাকে শেষ বার পিন্টুর সঙ্গেই দেখা গিয়েছিল বলে পুলিশের কাছে জানায় তারই এক বন্ধু। এর পরেই পিন্টুকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

গত সপ্তাহ থেকেই কাথুয়া এবং উত্তরপ্রদেশের উন্নাওয়ে ধর্ষণের মামলা নিয়ে শোরগোল পড়ে গিয়েছে গোটা দেশে। কাথুয়াতে যে ভাবে অভিযুক্তদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য ভারতীয় পতাকা নিয়ে মিছিল করা হয়েছে তাতে ভারতের সম্মান কালিমালিপ্ত হয়েছে। কিন্তু কাথুয়া নিয়ে এত শোরগোলের পরেও ধর্ষণের ঘটনা যে কমছে না, এটাওয়ার এই ঘটনাই ফের তা প্রমাণ করে দিল।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here