BJP
অসমের নাগরিকপঞ্জি নিয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ। ছবি: ইকনোমিক্স টাইমস থেকে

ওয়েবডেস্ক: প্রায় সপ্তাহখানেক আগে কেন্দ্রের খসড়া নাগরিকপঞ্জি (এনসিআর) প্রকাশের পর থেকেই শাসক দলের বিরুদ্ধে প্রতিবাদে সরব হয়েছেন বিরোধী দলের নেতৃত্ব। তবে এ বার খোদ অসম বিজেপির তরফেই ক্ষোভ প্রকাশ করে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের কাছে স্মারকলিপি পাঠানো হল। 

চুড়ান্ত খসড়া নাগরিকপঞ্জিতে নামের তালিকা দেখার পর অসম রাজ্য বিজেপির একাংশের অভিযোগ, প্রকৃত ভারতীয় নাগিরকের নাম কোথাও কোথাও বাদ পড়েছে। পরিবর্তে ঢুকে পড়েছে ‘বিদেশি’দের নাম।

অসম বিজেপির একটি স্থানীয় ইউনিটের তরফে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংয়ের কাছে স্মারকলিপিতে দাবি করা হয়েছে, নাম নথিভুক্তিকরণের নির্ধারিত সময়সীমা বাড়াতে হবে। কারণ প্রচুর পরিমাণে ভারতীয় নাগরিকের নাম ওই খসড়া তালিকা থেকে বাদ পড়েছে।

যদিও নাম অন্তর্ভুক্তি নিয়ে খেদের কারণে যে অন্য কোনো আশঙ্কা লুকিয়ে রয়েছে, সেটাও স্পষ্ট হয়ে ধরা পড়েছে নেতৃত্বের বক্তব্যে। হজাইয়ের বিধায়ক শিলাদিত্য দেব বলেছেন, এনসিআর চুড়ান্ত হয়ে যাওয়ার পর অসমের মুখ্যমন্ত্রী হয়ে যেতে পারেন এআইইউডিএফ প্রধান বদরুদ্দিন আজমল।

আরও পড়ুন: আসামের বাঙালিদের সামনে এখন দুর্যোগের ঘনঘটা

অন্য দিকে অসমের রাজ্য শাখার সহ-সভাপতি মনোজ ফুকান কার্যত স্বীকার করে নিয়েছেন, যে ৪০.৭ লক্ষ মানুষের নাম খসড়া তালিকা থেকে বাদ পড়েছে, তাদের অনেকেই প্রকৃত ভারতীয়। মনোজই রাজনাথ সিংয়ের কাছে স্মারকলিপি পাঠিয়ে প্রকৃত নাগরিকদের নাম নথিভুক্তি করণের সময় বাড়ানোর আবেদন করেছেন। পাশাপাশি তিনি জানিয়েছেন, “আমরা চাই এক জন ‘বিদেশি’র নামও যেন তালিকায় থেকে না যায়”।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন