তিন বছরে চার নম্বর, কর্নাটকের নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিলেন বাসবরাজ বোম্মই

0

খবরঅনলাইন ডেস্ক: গত তিন বছরের মধ্যে চার নম্বর মুখ্যমন্ত্রী পেল কর্নাটক। বুধবার রাজ্যের নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিলেন বাসবরাজ বোম্মাই (Basavaraj Bommai)। এ দিন বেঙ্গালুরুর রাজভবনে সংক্ষিপ্ত একটি অনুষ্ঠানে তাঁকে শপথবাক্য পাঠ করান রাজ্যপাল ঠাওয়ার চাঁদ গহলৌত। শপথমঞ্চে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের সদ্য প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বিএস ইয়েদিউরাপ্পা।

উল্লেখ্য, সদ্য প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর মতোই বাসবরাজও রাজনৈতিক ভাবে প্রভাবশালী লিঙ্গায়েত সম্প্রদায়ের অন্তর্ভুক্ত। তিনি ২০০৮ সালে বিজেপি-তে যোগ দেন। জনতা দল (ইউ) থেকে তিনি যোগ দিয়েছিলেন বিজেপি-তে। তার পর থেকে ধাপে ধাপে ঘটেছে তাঁর পদোন্নতি। দু’বার বিধান পরিষদ সদস্য হয়েছিলেন। তিন বার জিতেছেন হাবেরি জেলার শিগগাঁও কেন্দ্র থেকে।

Shyamsundar

প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বিএস ইয়েদিউরাপ্পার ঘনিষ্ঠ হিসেবেও পরিচিত বাসবরাজ। তাঁর বাবা এসআর বোম্মই ছিলেন কর্নাটকের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী।

অতীতে তিনি রাজ্যের জলসম্পদ দফতরের মন্ত্রী ছিলেন। পেশাগত ভাবে ইঞ্জিনিয়ার বাসবরাজ টাটা গ্রুপ দিয়ে নিজের কর্মজীবন শুরু করেছিলেন।

মঙ্গলবার পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রী বেছে নিতে বৈঠকে বসে বিজেপির পরিষদীয় দল। বিজেপির কেন্দ্রীয় পর্যবেক্ষক ধর্মেন্দ্র প্রধান এবং জি কিসান রেড্ডি বেঙ্গালুরুতে এই বৈঠকে যোগ দিয়েছিলেন। সেখানে রাজ্যের নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে বাসবরাজ বোম্মইকে (Basavaraj Bommai) বেছে নেওয়া হয়।

তিন বছরে চার নম্বর মুখ্যমন্ত্রী

উল্লেখ্য, এই নিয়ে গত তিন বছরের মধ্যেই চার নম্বর মুখ্যমন্ত্রী পেল কর্নাটক। ২০১৮ সালের মে মাসে সর্বশেষ বিধানসভা নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয় কর্নাটকে। ভোটের ফলাফলে বিজেপি একক বৃহত্তম দল হলেও সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করতে ব্যর্থ হয়। অন্য দিকে কংগ্রেস এবং জেডিএস নিজেদের মধ্যে সমঝোতা করে ফেলে জোট সরকার চালানোর জন্য।

কিন্তু কংগ্রেস-জেডিএস সরকার গড়ার আগেই মাত্র দু’ দিনের জন্য মুখ্যমন্ত্রী হয়ে যান ইয়েদিউরাপ্পা। তিনি ভেবেছিলেন বিধানসভায় সংখ্যাগরিষ্ঠতা প্রমাণ করে ফেলবেন। কিন্তু মাত্র ৫০ ঘণ্টা মুখ্যমন্ত্রী থেকে আস্থা ভোটের আগেই ইস্তফা দেন ইয়েদি। এর পর এইচডি কুমারস্বামীকে মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে বেছে নিয়ে সরকার গঠন করে কংগ্রেস-জেডিএস।

কিন্তু এই সরকার এক বছরের বেশি স্থায়ী ছিল না। ইয়েদিউরাপ্পার নেতৃত্বেই কংগ্রেস এবং জেডিএস থেকে বিধায়ক ভাঙিয়ে আনতে সফল হয় বিজেপি। সংখ্যাগরিষ্ঠতা প্রমাণে ব্যর্থ হয়ে ২০১৯-এর জুলাইয়ে পড়ে যায় কংগ্রেস-জেডিএস সরকার। সরকার গঠন করে বিজেপি। নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেন ইয়েদি।

কিন্তু তাঁর মেয়াদও দু’ বছরের বেশি টিকল না। গত সোমবার মুখ্যমন্ত্রী পদ থেকে ইস্তফা দেওয়ার কথা ঘোষণা করেন তিনি। তার পরেই পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে বেছে নেওয়া হয় বাসবরাজ বোম্মাইকে।

আরও পড়তে পারেন মেঘ ভাঙা বৃষ্টি, কাশ্মীরের গ্রামে মৃত ৪, নিখোঁজ অন্তত ৩০

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন