গোমাংস খাওয়া তাদের সংস্কৃতি, প্রতিবাদে মেঘালয়ে দলত্যাগ আরও এক বিজেপি নেতার

1
1188

শিলং: যা আশঙ্কা করা হচ্ছিল, সেটাই ধীরে ধীরে সত্যি হচ্ছে। নিজেদের নীতির জন্য উত্তরপূর্বে ক্রমশ ফাঁপরে পড়ছে বিজেপি। কিছুদিন আগেই দল ছেড়েছিলেন মেঘালয়ের এক বিজেপি নেতা বার্নার্ড মারাক। এ বার দল ছাড়লেন আরও এক নেতা।

মঙ্গলবার মেঘালয়ের বিজেপি রাজ্য সভাপতি শিবুন লিংডোকে নিজের পদত্যাগপত্র পাঠিয়েছেন নর্থ গারো জেলা সভাপতি বাচ্চু। নিজেদের সাম্প্রদায়িক চিন্তাধারাকে মেঘালয়ের মানুষদের ওপর চাপিয়ে দিচ্ছে বিজেপি, এমনই অভিযোগ করেন বাচ্চু।

বাচ্চু জানান, “গারো মানুষদের ভাবাবেগের সঙ্গে আমি কোনো আপস করতে পারব না।” গোমাংস খাওয়া যে তাদের সংস্কৃতি, সেটা উল্লেখ করে তিনি বলেন, “আমি গারো, এবং গারোদের স্বার্থ দেখা আমার কর্তব্যের মধ্যে পড়ে। গোমাংস খাওয়া আমাদের সংস্কৃতি। বিজেপি যে ভাবে তাদের সাম্প্রদায়িক দৃষ্টিভঙ্গি আমাদের ওপর চামিয়ে দিচ্ছে তা আমি মেনে নিতে পারছি না।”

নরেন্দ্র মোদী সরকারের তিন বছরপূর্তি উৎসব পালন তিনি ‘বিচি-বিফ পার্টি’র মাধ্যমে করবেন বলে কিছুদিন আগেই নিজের ফেসবুকে জানিয়েছিলেন বাচ্চু। বিচি হল স্থানীয় রাইস বিয়ার। এই ফেসবুকের পোস্টের পর বিজেপি শীর্ষ নেতৃত্বের তরফ থেকে তাঁকে সমালোচনার মুখেও পড়তে হয়। তাঁর বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে সতর্ক করেন বিজেপি নেতা নলিন কোহলি।

কিছুদিন আগেই বিজেপি-ছাড়া বার্নার্ড জানিয়েছিলেন আগামী শনিবার একটি ‘বিফ পার্টি’ আয়োজন করবেন তিনি। পদত্যাগের পর বাচ্চু জানিয়েছেন তিনি সেই পার্টিতে উপস্থিত থাকবেন। বাচ্চুর কথায়, “বিজেপির বিরুদ্ধে আওয়াজ ওঠানোর জন্য ওই পার্টিতে আমি যাব।”

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

1 মন্তব্য

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here