বুলডোজারের সামনে গিয়ে দাঁড়ালেন বৃন্দা কারাট, জাহাঙ্গিরপুরীতে উচ্ছেদ অভিযান বন্ধ করল প্রশাসন

0

নয়াদিল্লি: জহাঙ্গিরপুরীতে তথাকথিত অবৈধ নির্মাণ উচ্ছেদ অভিযানে স্থগিতাদেশ দিয়েছিল সুপ্রিম কোর্ট। কিন্তু তার পরেও অব্যাহত ছিল উচ্ছেদ অভিযান। উত্তর দিল্লি পুরনিগমের দাবি ছিল, স্থগিতাদেশ সংক্রান্ত কোনো নির্দেশিকা এখনও পর্ষন্ত তাদের হাতে এসে পৌঁছোয়নি। অতএব সকাল থেকেই শুরু হয় উচ্ছেদ অভিযান।

কিন্তু দুপুর বারোটা নাগাদ কার্যত এক অবিশ্বাস্য ঘটনা। সবাইকে চমকে দিয়ে পুলিশকর্মী, স্থানীয় মানুষের ভিড় ঠেলে সিপিএম নেত্রী বৃন্দা কারাট গিয়ে দাঁড়িয়ে পড়েন একটি বুলডোজারের সামনে। হইহই পড়ে যায় ওই জায়গায়। দেখা যায় বৃন্দার হাতে এক গোছা কাগজ রয়েছে।

দায়িত্বপ্রাপ্ত পুলিশ আধিকারিকদের ওই কাগজ দেখিয়ে বৃন্দা বলেন সেটা কোর্টের নির্দেশের কপি। ফলে উচ্ছেদ অভিযান বন্ধ করার কথা বলেন তিনি। এর কিছুক্ষণের মধ্যেই উচ্ছেদ অভিযান বন্ধ করে পুরনিগম।

বুধবার সকালে পুলিশের উপস্থিতিতে বেআইনি দখল উচ্ছেদের অভিযানে নামে পুরনিগম। বুধ এবং বৃহস্পতিবার এই উচ্ছেদ অভিযান চলবে বলেও জানিয়েছিল পুরিনিগম। কিন্তু এর কিছু পরই শীর্ষ আদালত সমস্ত উচ্ছেদ অভিযান বন্ধ করার নির্দেশ দেয়।

বৃন্দা যখন বুলডোজারের সামনে দাঁড়িয়ে, ঠিক একই সময়ে উচ্ছেদের বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টে যিনি আবেদন করেছিলেন তিনি ফের সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি এমভি রামানার দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। বলা হয়, আদালতের নির্দেশের পরেও জাহাঙ্গিরপুরীতে ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়া চলছে।

এ সব দেখে প্রধান বিচারপতি নির্দেশ দেন কোর্টের অর্ডার সব আধিকারিকের কাছে অবিলম্বে পৌঁছোতে হবে। তবে এই ব্যাপারে ফের বৃহস্পতিবার আদালতে শুনানি হওয়ার কথা রয়েছে।

তবে এই ধরনের ঘটনায় সাম্প্রদায়িক গন্ধ দেখছে বিরোধীরা। বিরোধীদের অভিযোগ, বেছে বেছে সংখ্যালঘু মহল্লাতেই এই আস্ফালন দেখাচ্ছে প্রশাসন। আর এমনিতেও দিল্লিতে সরকার আম আদামি পার্টির হলেও পুলিশ-প্রশাসন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের নিয়ন্ত্রণে। এ দিনও জাহাঙ্গিরপুরীর ঘটনা নিয়ে সরব হয়েছে বিরোধীরা।

যদিও অকুস্থলে বামফ্রন্ট নেতৃত্ব ছাড়া কোনো বিরোধী দলকেই দেখা যায়নি। উচ্ছেদ অভিযানের বিরুদ্ধে এ দিন বৃন্দা ছাড়াও ঘটনাস্থলে ছিলেন হান্নান মোল্লা-সহ বামপন্থী বিভিন্ন দলের বেশ কয়েকজন প্রতিনিধি।

আরও পড়তে পারেন:

‘বাংলার ঐতিহ্য এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন আপনি,’ মুখ্যমন্ত্রীর প্রশংসায় পঞ্চমুখ শিল্পপতি গৌতম আদানি

‘আগামী দিনে কমপক্ষে দেড় কোটি কর্মসংস্থান হতে চলেছে বাংলায়’, ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের

মহার্ঘ পাতিলেবু, দুর্মূল্যের বাজারে সহায় কাগজি-গন্ধরাজ

বিয়ে, বিয়ে, বিয়ে− পছন্দ করি না, তবুও…, ‘কেজিএফ চ্যাপ্টার ২’-এর সংলাপ উঠে এলে বিয়ের কার্ডে

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন