Naveen Jindal

ওয়েবডেস্ক: সিবিআই গত বুধবার বিশেষ আদালতকে জানায়, কংগ্রেসের নেতা ও শিল্পপতি নবীন জিন্দাল এবং অন্যান্যদের বিরুদ্ধে ঘুষ বিনিময় সংক্রান্ত অভিযোগের চার্জশিট তৈরি করা হয়েছে। খুব শীঘ্রই তারা তথ্য প্রমাণ-সহ তা আদালতে জমা করতে চলেছে। ঝাড়খণ্ডে কয়লা খনি বরাদ্দে অনিয়মের অভিযোগের ভিত্তিতেই নবীনের বিরুদ্ধে ওই মামলা দায়ের হয়েছিল।

সিবিআইয়ের দাবি, বিশেষ আদালতের বিচারপতি ভরত পরাশরের কাছে ওই চার্জশিট জমা করা হবে। তবে তা জমা দেওয়ার আগে জিন্দল-সহ অন্যান্য অভিযুক্তরা নিজেদের বিরুদ্ধে অভিযোগ-খণ্ডন করার জন্য লিখিত আবেদন জানাতে পারেন। আগামী ১৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ওই আবেদন জমা করার জন্য সময় বেঁধে দিয়েছে সিবিআই। কারণ তার পরই সিবিআইয়ের ওই বিশেষ আদালত রায় ঘোষণা করবে।

কয়লা ব্লক বণ্টন দুর্নীতির ওই অভিযোগটি উঠেছিল ঝাড়খণ্ডের অমরকোন্ডা মুর্গাদঙ্গল ব্লকটিকে কেন্দ্র করে। সিবিআইয়ের পক্ষ থেকে হাজির হওয়া সিনিয়র পাবলিক প্রসিকিউটর ভি কে শর্মা বলেন,” দুর্নীতি প্রতিরোধ আইনের ধারা ৭ এবং ১২- এর অধীন সরকারি কর্মচারীকে ঘুষ দেওয়ার বা গ্রহণের অভিযোগে দোষী সাব্যস্তের চার্জ দাখিল করা হয়েছে। “

আদালত ২০১২ সালের এপ্রিল মাসে প্রথম জিন্দালের বিরুদ্ধে চার্জ গঠনের আদেশ দেয়।

গত বছরই মধ্যপ্রদেশের উর্তান কয়লা ব্লকের বরাদ্দ সংক্রান্ত মামলায় জামিন পেয়েছিলেন নবীন।  এক লক্ষ টাকার ব্যক্তিগত বন্ডে তাঁদের জামিন মঞ্জুর করেছিলেন সিবিআইয়ের বিশেষ আদালতের বিচারপতি ভরত পরাশর।  উত্তর উর্তান কয়লা ব্লক বরাদ্দে প্রতারণা ও অপরাধমূলক ষড়যন্ত্রের অভিযোগ রয়েছে শিল্পপতি নবীন জিন্দাল-সহ বাকিদের বিরুদ্ধে। চার্জশিটে সিবিআই জানিয়েছে, কয়লা মন্ত্রককে বিভ্রান্ত করেছে জিন্দাল স্টিল অ্যান্ড পাওয়ার লিমিটেড (জেএওসপিএল)।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন