rafael jet
রাফাল জেট। ছবি সৌজন্যে ডিএনএ ইন্ডিয়া।

নয়াদিল্লি: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সম্মতিতে রাফাল চুক্তি নিয়ে যাবতীয় তথ্য শীর্ষ আদালতে জমা দিয়েছে কেন্দ্র।

রাফাল চুক্তি নিয়ে দেশ জুড়ে রাজনৈতিক তরজা চলছে। তার মধ্যেই গত সোমবার শীর্ষ আদালতে গোপন নথি জমা দেয় কেন্দ্র। মুখবন্দি ওই খামে ফরাসি সংস্থা দাসোর থেকে ৩৬টি যুদ্ধবিমান কেনার সিদ্ধান্ত ও চুক্তি সংক্রান্ত বিশদ তথ্য রয়েছে। প্রতিটি যুদ্ধবিমান কিনতে কত খরচ হয়েছে তা-ও রয়েছে ওই নথিতে।

বিতর্কিত রাফাল চুক্তির সবিস্তার তথ্য জানতে চেয়ে সুপ্রিম কোর্টে একাধিক আবেদন জমা পড়েছিল। দাবি উঠেছিল, আদালতের তত্ত্বাবধানে সিবিআই তদন্তেরও। এর পরেই গত ৩১ অক্টোবর কেন্দ্রের কাছে রাফালের দাম সংক্রান্ত তথ্য জানতে চায় সুপ্রিম কোর্ট। ১০ দিনের মধ্যে বিশদ তথ্য জমা দিতে নির্দেশ দেয় শীর্ষ আদালত। সেই সময়সীমা পেরিয়েও গিয়েছে ইতিমধ্যে। প্রথমে সেই তথ্য জমা দিতে চায়নি কেন্দ্র। কিন্তু তার পরেই নিজেদের অবস্থান বদলায় তারা।

আরও পড়ুন রজনীকান্তের ‘বিজেপি বিপজ্জনক’ মন্তব্য ঘিরে ফের জল্পনা তুঙ্গে

সূত্রের খবর, রাফাল তথ্য জমা দেওয়ার ব্যাপারে বিস্তারিত আলোচনা করেন অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি, প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারমন এবং অ্যাটর্নি জেনারাল কেকে বেনুগোপাল। তার পরে মোদীর সম্মতিতে এই তথ্য জমা পড়ে শীর্ষ আদালতে।

জানা গিয়েছে, আদালতের থেকে কিছু লুকোনো উচিত নয় বলে মত প্রকাশ করেছিলেন এই তিন জন। তবে আদালত যদি আবেদনকারীদের রাফালের দাম জানাতে বলে, সে ক্ষেত্রে নতুন করে হলফনামা জমা দিতে পারে কেন্দ্র। সেই হলফনামাও তৈরি করা হচ্ছে।

বুধবার রাফালের ব্যাপারে শীর্ষ আদালতে শুনানি রয়েছে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here