centre's campaign
হর কাম, দেশ কে নাম।

ওয়েবডেস্ক: দিল্লির হার থেকে শিক্ষা নিচ্ছে কেন্দ্রের শাসকদল বিজেপি? কেন্দ্রীয় সরকারের পরবর্তী কার্যক্রম সে রকমই ইঙ্গিত দিচ্ছে।

এক সূত্র এনডিটিভি-কে জানিয়েছে, কেন্দ্রীয় সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে, জনকল্যাণে সরকার কী উদ্যোগ গ্রহণ করেছে, তা বেশ বড়ো করে প্রচার করা হবে। দিল্লির বিধানসভা নির্বাচনে ব্যাপক ভাবে পরাজয়ের এক দিন পর সরকার এই সিদ্ধান্ত নিল।

উল্লেখ্য, দিল্লি বিধানসভায় বিজেপি ৮টি আসন দখল করেছে, গত ২০১৫-এর তুলনায় ফল সামান্য ভালো হয়েছে। সে বার ৩টি আসন পেয়েছিল তারা।

বিধানসভার নির্বাচনে ৬২টি আসন দখল করার পর আম আদমি পার্টির সুপ্রিমো অরবিন্দ কেজরিওয়াল বলেন, গত পাঁচ বছর ধরে তাঁর সরকার যে কাজ করেছে, তারই স্বীকৃতিস্বরূপ দিল্লিবাসীর দেওয়া উপহার এই জয়। বিজেপি, যারা গত ২০ বছর দিল্লি শাসন করার সুযোগ পায়নি, বলেছে তারা এই ফল নিয়ে ‘আত্মসমীক্ষা’ করবে।

‘হর কাম, দেশ কে নাম’ শীর্ষক প্রচারাভিযানের কাজ ত্বরান্বিত করার জন্য কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভাড়েকর বুধবার সমস্ত দফতরকে লিখিত ভাবে নির্দেশ দিয়েছেন বলে সূত্র মারফত জানা গিয়েছে। ৩১ মার্চ পর্যন্ত ৪৫ দিন ধরে সংবাদপত্র, টিভি চ্যানেল এবং ডিজিটাল মিডিয়ায় বিজ্ঞাপন দিয়ে এই প্রচার চালানো হবে।

আরও পড়ুন: ছ’বছরের শীর্ষে খুচরো মুদ্রাস্ফীতি

সাধারণ মানুষের জীবনযাত্রায় উন্নতি ঘটানোর জন্য সরকার কী কী পদক্ষেপ করেছে তা এই প্রচারাভিযানের মাধ্যমে সকলকে জানানো হবে। প্রতিটি মন্ত্রকের সিনিয়র আধিকারিকদের তাঁদের উদ্যোগগুলির খুঁটিনাটি জানাতে বলেছেন মন্ত্রী জাভাড়েকর।

দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপি সিএএ-বিরোধী বিক্ষোভ আন্দোলনকে পাখির চোখ করেছিল। আর আম আদমি পার্টির প্রচারে মূলত উঠে এসেছিল তাদের গত পাঁচ বছরের কাজ।

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন