mamata banerjee and l k advani
আডবাণী এবং মমতা। প্রতীকী ছবি

ওয়েবডেস্ক: এ বারের লোকসভা ভোটে টিকিট না-পাওয়ার পর এই প্রথম মতপ্রকাশ করলেন বিজেপির বর্ষীয়ান নেতা লালকৃষ্ণ আডবাণী। তিনি একটি দীর্ঘ মন্তব্য পোস্ট করেছেন ব্লগে। তার পরই তোলপাড় জাতীয় রাজনীতি। এ দিন আডবাণীর খোলাখুলি মন্তব্য প্রকাশের পরই স্বাগত জানান পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এ দিন আডবাণী নিজের ব্লগে উঠে এসেছে অতীত থেকে বর্তমানের তুলনামূলক স্মৃতিচারণা। তিনি লিখেছেন, ”বিজেপির জন্ম থেকে রাজনৈতিক ভিন্নমত পোষণকারীদের শত্রু হিসেবে দেখিনি, বরং বিরোধী ভেবেছি”।

একই সঙ্গে তিনি লিখেছেন, ”আমাদের জাতীয়তাবাদ কখনও বিরোধীদের ‘দেশদ্রোহী’ তকমা দেওয়া নয়। ব্যক্তিগত পরিসর ও রাজনৈতিক স্তরে মতপ্রকাশের স্বাধীনতার প্রতি দায়বদ্ধ দল”।

এর পরই আডবাণীর মন্তব্যকে উদ্দেশে টুইট করেন মমতা লেখেন, “বিজেপির প্রতিষ্ঠাতা, জনক তথা দেশের প্রাক্তন উপ-প্রধানমন্ত্রী লালকৃষ্ণ আডবাণীজি গণতান্ত্রিক সৌজন্যে প্রসারিত করার বিষয়টি উল্লেখযোগ্য হিসাবে বর্ণনা করেছেন। যে সমস্ত বিরোধী রাজনৈতিক দল বিরুদ্ধে মত পোষণ করে তারা দেশ-বিরোধী নয়। আমরা তাঁর বক্তব্যকে স্বাগত জানাই এবং তাঁর প্রতি আমাদের শ্রদ্ধা অটুট”।

নিজে প্রার্থী না হতে পারা নিয়ে কোনো ক্ষোভপ্রকাশ করেননি আডবাণী। উল্টে লোকসভা ভোটকে সামনে রেখে তিনি ওই ব্লগ মন্তব্যে আবেদন করেছেন, “দেশের গণতান্ত্রিক কাঠামোকে মজবুত করতে ঐক্যবদ্ধ চেষ্টা করা উচিত। গণতন্ত্রের উৎসব নির্বাচন। এটা রাজনৈতিক দল, গণমাধ্যম ও নির্বাচন প্রক্রিয়ার সঙ্গে জড়িতদের সত্ভাবে আত্মমন্থনের সুযোগ তৈরি করেছে”।

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন