The Indian National Congress

নয়াদিল্লি: রাজস্থান বিধানসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে একাধিক অভিনব প্রচার কৌশল পন্থা নিতে চলেছে জাতীয় কংগ্রেস। এ ক্ষেত্রে দলের সভাপতি রাহুল গান্ধীর সঙ্গে বুথ স্তরের কর্মীদের যোগাযোগ সরাসরি অব্যাহত রাখতে বিশেষ যে পরিকল্পনা নেওয়া হল, তার পোশাকি নাম দেওয়া হয়েছে ‘শক্তি’।

রাজস্থানের জাতীয় কংগ্রেস সাধারণ সম্পাদক অবিনাশ পাণ্ডে জানিয়েছেন, আগামী মার্চের দ্বিতীয় সপ্তাহে ওই নতুন যোগাযোগ মাধ্যমের উদ্বোধন করা হবে। স্বয়ং রাহুলের মস্তিষ্কপ্রসূত এই যোগাযোগ মাধ্যমটির সাহায্যে রাজ্যের যে কোনো বুথ স্তরের কর্মীরাও সভাপতির সঙ্গে যে কোনো সুবিধা-অসুবিধার কথা নিয়ে আলোচনা করতে পারবেন খুব সহজেই।

জানা গিয়েছে, অত্যাধুনিক প্রযুক্তি-নির্ভর এই পদ্ধতিটি এআইসিসি বৈঠকে সর্বসম্মতিক্রমে পাশ হওয়ার পর প্রাথমিক প্রস্তুতি চলছে। পাইলট প্রজেক্ট হিসাবে বেছে নেওয়া হয়েছে রাজস্থানকে। বছর ঘুরলেই ওই রাজ্যে মেয়াদ পূর্ণ হচ্ছে বিজেপির বসুন্ধরা রাজে সরকারের। ফলে পরীক্ষামূলক ভাবে রাজস্থান বিধানসভা ভোটে সাফল্য মিললে তা ছড়িয়ে দেওয়া হবে গোটা দেশের কংগ্রেস কর্মীদের কাছে। যা দিয়ে ২০১৯-এর লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির মতো শক্তিশালী দলের প্রধান প্রতিপক্ষ হিসাবে দলীয় কর্মীদের গড়ে তুলতে সক্ষম হয় কংগ্রেস।

rahul gandhi

‘শক্তি’র মাধ্যমে যে কোনো বুথ স্তরের কর্মী রাহুল গান্ধীর সঙ্গে মোবাইল কল, মেসেজ অথবা ভিডিও-র সাহায্যে সরাসরি যোগাযোগ করতে পারবেন। এ ছাড়া রাজস্থানে মেরা বুথ মেরা গৌরব নামের একটি উদ্যোগও নেওয়া হচ্ছে। এই পরিকল্পনায় রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে ছড়িয়ে-ছিটিয়ে থাকা কংগ্রেস কর্মীদের তথ্য সংগ্রহ করা হবে। পাশাপাশি ওই তথ্য ভাণ্ডার থেকে প্রয়োজন মতো কর্মীকে নির্দিষ্ট কর্মসূচি সম্পর্কে অবহিত করার কাজটি নির্বিঘ্নে সারা যাবে।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন