কোভিশিল্ডের দু’টি ডোজে ৮৪ দিনের ব্যবধান ফের বদলাতে পারে

0

নয়াদিল্লি: কোভিড-১৯ (Covid-19) প্রতিরোধী ভ্যাকসিন কোভিশিল্ডের দু’টি ডোজের ব্যবধান ফের এক বার বদলাতে পারে। প্রথম ডোজ নেওয়ার পর এখন ৮৪ দিনের ব্যবধানে দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া হলেও এই নিয়ে তৃতীয় বার বিষয়টি পর্যালোচনা করা হচ্ছে বলে জানিয়েছে সরকারি সূত্র।

বৃহস্পতিবার সূত্র উদ্ধৃত করে এনডিটিভি-র রিপোর্টে বলা হয়, কোভিশিল্ডের (Covishield) দু’টি ডোজের মধ্যে ৮৪ দিনের ব্যবধান হ্রাস করা নিয়ে আলোচনা চলছে।

সূত্র জানিয়েছে, “কোভিশিল্ডের দু’টি ডোজের মধ্যে ব্যবধান কমানোর বিষয়টি বিবেচনা করা হচ্ছে। এ বিষয়ে এনটিএজিআই (National Technical Advisory Group on Immunisation) -এ আরও আলোচনা করা হবে”।

ব্যবধান বেড়েছে একাধিক বার!

অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার কোভিডটিকা ভারতে তৈরি করছে সেরাম ইনস্টিটিউট অব ইন্ডিয়া (SII)। তাদেরই তৈরি এই টিকার ভারতীয় সংস্করণ কোভিশিল্ড। গত জানুয়ারিতে দেশব্যাপী টিকাকরণ শুরু হওয়ার সময় ৪-৬ সপ্তাহের ব্যবধানে দু’টি ডোজ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। কিছু দিন পরে সেই ব্যবধান ৬-৮ সপ্তাহে বাড়ানো হয়েছিল।

গত মে মাসে ব্রিটেন থেকে প্রাপ্ত পর্যালোচনা রিপোর্টের উপর নির্ভর করে ভারত সরকার দু’টি ডোজের ব্যবধান ১২-১৬ সপ্তাহে সংশোধন করে।

উঠছে একাধিক প্রশ্ন!

যদিও ভারত বায়োটেকের তৈরি কোভ্যাক্সিনের (Covaxin) দু’টি ডোজের ব্যবধান একই রয়েছে। কিন্তু কোভিশিল্ডের ক্ষেত্রে একাধিক বার ব্যবধান সংশোধনের সিদ্ধান্ত বিভিন্ন ধরনের প্রশ্নের জন্ম দিয়েছে।

একাংশের অভিযোগ, করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের সময় চাহিদা অনুযায়ী, পর্যাপ্ত জোগানের অভাবের কারণেই কোভিশিল্ডের দু’টি ডোজের ব্যবধান বাড়িয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল সরকার। যদিও তেমন অভিযোগ নস্যাৎ করে সরকারি কমিটি। তারা জানায়, দু’টি ব্যবধান যত দীর্ঘ হবে তত বেশি অ্যান্টিবডি তৈরি হবে।

কিন্তু ফের এক বার ব্যবধান হ্রাসের পর্যালোচনা নিয়ে নতুন করে প্রশ্ন ওঠাটাই স্বাভাবিক!

খবর অনলাইন-এর আরও খবর পড়ুন এখানে:

ত্রিপুরায় তৃণমূল ছাত্র পরিষদের প্রতিষ্ঠা দিবস উদ্‌যাপনের প্রস্তুতি, মূল আকর্ষণ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

আইনজীবী পরিচয় দিয়ে কয়েক লক্ষ টাকা প্রতারণার অভিযোগে গ্রেফতার বিজেপি নেত্রী

আফগানিস্তানে আটকে থাকাদের ফেরাতে সব কিছুই করছে সরকার, সর্বদল বৈঠকে জানাল কেন্দ্র

কাবুল বিমানবন্দরে বড়োসড়ো হামলার আশঙ্কায় বিশেষ সতর্কতা আমেরিকার

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন