অনুব্রত-গড়ে পার্টি অফিস ফিরল সিপিএমের!

0
CPIM Party Office
এই সেই পার্টি অফিস!

ওয়েবডেস্ক: বোলপুরের রায়পুর-সুপুর পঞ্চায়েতের রজতপুরে বছর দেড়েক বাদে নিজেদের পার্টি অফিস ফিরে পেল সিপিএম। দলীয় নেতৃত্বের অভিযোগ, ২০১৭ সালের সেপ্টেম্বর মাসে ওই পার্টি অফিসের দখল নিয়েছিল রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল! কী ভাবে পুনর্দখল?

জানা গিয়েছে, তৃণমূলের পক্ষ থেকেই ইঙ্গিত পেয়ে ওই দলীয় কার্যালয়ের দখল নেওয়ার পরিকল্পনা নেন স্থানীয় সিপিএম নেতৃত্ব। ইঙ্গিত মেলামাত্রই তড়িঘড়ি ‘রজতপুর তৃণমূল কার্যালয়’ লেখা কার্যালয়ে চুনকামের কাজ শুরু করে দেন তাঁরা। মুছে ফেলা হয় তৃণমূলের প্রতীকও। এ ব্যাপারে স্থানীয় সিপিএম নেতা গৌতম ঘোষ সংবাদ মাধ্যমের কাছে জানান, “এলাকায় আমাদের সংগঠন ফের ঘুরে দাঁড়াচ্ছে। যা দেখে আমাদের পার্টি অফিস আমাদের হাতেই ফিরিয়ে দিতে বাধ্য হয়েছে তৃণমূল”।

মঙ্গলবার সকালেই পার্টি অফিসটির দখল ফের চলে যায় সিপিএমের হাতে। পুরনো কার্যালয় ফিরে পেয়ে স্থানীয় সিপিএম কর্মীরাও ভিড় জমান সেখানে। রীতিমতো বিজয় উৎসবের চেহারা নেয় এলাকা।

রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের মতে, গত লোকসভা ভোটে তৃণমূলের আশানুরূপ ফল হয়নি বীরভূমের দাপুটে নেতা জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলের গড়ে। অন্য দিকে রাজ্যে গেরুয়া শিবিরের বাড়বাড়ন্ত রুখতে সমস্ত বিজেপি-বিরোধী দলের ঐক্যবদ্ধ লড়াইয়ের আহ্বান জানিয়েছেন খোদ তৃণমূলনেত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

[ আরও পড়ুন: এ বার তপন ঘোষের খাসতালুকে খুলছে সিপিএমের পার্টি অফিস! ]

সব মিলিয়ে জেলায় জেলায় বিজেপি-বিরোধী শক্তিকে সম্মিলিত করতে কিছুটা হলে নমনীয় হতে দেখা যাচ্ছে তৃণমূলকেও। গত পঞ্চায়েত নির্বাচনেও বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রায়পুর-সুপুর পঞ্চায়েতের রজতপুর থেকে জয়লাভ করে তৃণমূল। তবে লোকসভা ভোটের ফলাফলে সম্ভবত টনক নড়েছে!

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.