কী ভাবে খুশি থাকা যায়, এপ্রিল থেকে নতুন পাঠক্রম দিল্লির সরকারি স্কুলগুলিতে

নয়াদিল্লি: নিত্যদিনের পড়াশোনার পাশাপাশি কী ভাবে খুশি থাকা যায়, শিশুদের সেটাও শেখাবে দিল্লির সরকারি স্কুলগুলি। অভিনব এই সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছেন দিল্লির শিক্ষামন্ত্রী মনীশ সিসোদিয়া। আগামী এপ্রিল থেকে শুরু হওয়া নতুন শিক্ষাবর্ষে এই ব্যাপারে পাঠক্রম আনার চিন্তাভাবনা করছে দিল্লির আপ সরকার।

বুধবার শিক্ষাবিষয়ক একটি অনুষ্ঠানে সিসোদিয়া বলেন, “খুশির পাঠক্রমের ব্যাপারে কী ভাবে এগোনো যায় সেটা দেখার জন্য স্কুল শিক্ষকদের নিয়ে দিল্লি সরকার একটি বিশেষজ্ঞ দল গঠন করেছে।” দিল্লিতে যে ভাবে ধর্ষণ, খুনোখুনি-সহ বিভিন্ন অপরাধমূলক কাজকর্ম বাড়ছে তার জন্য শিক্ষাব্যবস্থা অনেকটাই দায়ী বলে মনে করেন তিনি। শিক্ষামন্ত্রী বলেন, নার্সারি থেকে অষ্টম শ্রেণির পড়ুয়াদের জন্য এই পাঠক্রম চালু করা হবে।

তিনি বলেন, “আমাদের শিক্ষাব্যবস্থায় একটু পরিবর্তনের প্রয়োজন হয়েছে।” সিসোদিয়ার কথায়, খুশির পাঠক্রমটি হবে কার্যকলাপভিত্তিক এবং এখানে কোনো পরীক্ষার ব্যাপারে থাকবে না। এর পরে একাধিক টুইটে সিসোদিয়া জানান, এই পাঠক্রমের ফলে পড়ুয়ারা খুশিতে থাকবে। সেই সঙ্গে পড়ুয়াদের আত্মসম্মানবোধ এবং আত্মমর্যাদাবোধও আসবে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.