‘শাসক দলের হয়ে কাজ করে পুলিশ’, চাঁচাছোলা ভাষায় তিরস্কার সুপ্রিম কোর্টের

0

নয়াদিল্লি: শাসক দলের হয়ে কাজ করে পুলিশ। বিরোধীদের শায়েস্তা করতে পক্ষপাতিত্বমূলক পদক্ষেপ নেয় পুলিশ। প্রায়শই এমন অভিযোগ তুলে থাকে বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলো। এ বার কতকটা একই ভাষায় পুলিশের ক্ষমতার অপব্যবহার নিয়ে তীব্র ভর্ৎসনা করল সুপ্রিম কোর্ট।

বৃহস্পতিবার একটি মামলার শুনানিতে সর্বোচ্চ আদালত বলে, শাসকদলকে খুশি করতে পুলিশ যত্রতত্র ক্ষমতার অপব্যবহার করে থাকে। এমনকী শাসকদলের নির্দেশ মেনে কাজ করতে গিয়ে বিরোধীদেরও হেনস্তা করা হয়। এই ‘বিরক্তিকর প্রবণতা’ই খুবই বিপজ্জনক।

এ ধরনের প্রবণতার জন্য পুলিশকেই দায়ী করা উচিত বলে স্পষ্ট জানিয়ে দেয় সুপ্রিম কোর্ট।

শাসকদলের কৃপাপ্রার্থী পুলিশ!

পুলিশ আধিকারিকদের অবশ্যই আইনের শাসনে থাকতে হবে উল্লেখ করে প্রধান বিচারপতি এনভি রমন্নার নেতৃত্বাধীন সুপ্রিম কোর্টের একটি বেঞ্চ বলে, “যে পুলিশ কর্মকর্তারা ক্ষমতাসীন দলের অনুগ্রহ পেতে চান, তাঁরা ক্ষমতার অপব্যবহার করেন এবং বিরোধীদের হয়রানি করেন”।

মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরকে থাপ্পড় মারার মন্তব্য করে গ্রেফতার হয়েছিলেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নারায়ণ রাণে। সেই ঘটনার পর সুপ্রিম কোর্টের এই পর্যবেক্ষণ বেশ তাৎপর্যপূর্ণ বলেই ধরে নেওয়া যেতে পারে।

রাণে বলেছিলেন, রাজ্যের ক্ষমতাসীন শিবসেনা ‘তালিবানের মতো’ আচরণ করছে। রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্বীদের হয়রানি করছে। অন্য দিকে, মহরাষ্ট্র সরকার পাল্টা অভিযোগ করে, কেন্দ্রীয় সরকারের সংস্থাগুলি প্রাক্তন মন্ত্রী অনিল দেশমুখের মতো নেতাদের টার্গেট করছে।

এ দিন ছত্তীসগঢ়ের এক পুলিশ আধিকারিকরে আবেদনের শুনানি করছিল সুপ্রিম কোর্ট। ওই পুলিশকর্তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছিল এবং তাঁর বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগ আনা হয়েছিল।

যে মামলার শুনানি

১৯৯৪ ব্যাচের আইপিএস অফিসার গুরজিন্দর পাল সিংহ আদালতকে অনুরোধ করেছেন, ছত্তীসগঢ় সরকারের বিরুদ্ধে দুর্নীতি ও ষড়যন্ত্রের অভিযোগে তাঁর বিরুদ্ধে এফআইআর বাতিল করা হোক। তাঁর অভিযোগ, রাজ্যের কংগ্রেস সরকার তাঁকে হেনস্তা করছে, কারণ তাঁকে বিজেপির নেতৃত্বাধীন প্রশাসনের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ হতে দেখা গিয়েছিল।

চলতি বছরের শুরুর দিকে তদন্তের পর আয়ের থেকে অনেক বেশি অবৈধ সম্পদের মালিকানা নিয়েও অভিযোগ উঠেছিল গুরজিন্দরের বিরুদ্ধে। তবে ছত্তীসগঢ় সরকারকে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ, ওই অফিসারকে গ্রেফতার করা যাবে না।

খবর অনলাইন-এর আরও খবর পড়ুন এখানে:

কোভিশিল্ডের দু’টি ডোজে ৮৪ দিনের ব্যবধান ফের বদলাতে পারে

ত্রিপুরায় তৃণমূল ছাত্র পরিষদের প্রতিষ্ঠা দিবস উদ্‌যাপনের প্রস্তুতি, মূল আকর্ষণ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

আইনজীবী পরিচয় দিয়ে কয়েক লক্ষ টাকা প্রতারণার অভিযোগে গ্রেফতার বিজেপি নেত্রী

আফগানিস্তানে আটকে থাকাদের ফেরাতে সব কিছুই করছে সরকার, সর্বদল বৈঠকে জানাল কেন্দ্র

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন