নয়াদিল্লি: ইভিএমের বদলে ব্যালট পেপার ফিরিয়ে আনার দাবিতে যখন নির্বাচনের কমিশনের দারস্থ হয়েছে দেশের ষোলটি বিরোধী দল, তখন তাদের দিকে কার্যত চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিল নির্বাচন কমিশন।

মে’র গোড়ায় একটি ‘হ্যাকাথন’ আয়োজন করার চিন্তাভাবনা করছে কমিশন, যেখানে সবাইকে ইভিএম ‘হ্যাক’ করার ‘সুযোগ’ দেওয়া হবে। তার কয়েক দিন আগে সবক’টি প্রধান রাজনৈতিক দলের সঙ্গে দেখা করবে কমিশনের প্রতিনিধিরা, যেখানে দেখানো হবে কোনো ভাবেই ইভিএমে জালিয়াতি করা সম্ভব নয়। তবে এই দু’টি কর্মসূচির এখনও দিনক্ষণ ঘোষণা করেনি কমিশন।

উল্লেখ্য, দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের দাবি, তাঁকে একটি ইভিএম যন্ত্র দেওয়া হোক। ২৪ ঘণ্টারও কম সময়ে তিনি প্রমাণ করে দেবেন যে ইভিএমে জালিয়াতি সম্ভব। এখানে স্মরন করা যেতে পারে অরবিন্দ এক জন আইটি ইঞ্জিনিয়ার।

ইভিএমের বদলে ব্যালট পেপার ফিরিয়ে আনার দাবিতে সম্প্রতি নির্বাচন কমিশনের কাছে গিয়েছিল তৃণমূল, মায়াবতীর বসপা, কংগ্রেস-সহ আরও বেশ কয়েকটি বিরোধী দল। কিন্তু সেই সফরে সঙ্গী হননি কেজরিওয়াল, যে হেতু তাঁর অভিযোগ মূলত পঞ্জাব নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ছিল।

কমিশনের কাছে বিরোধীরা জানায় মধ্যপ্রদেশের ভিন্দের একটি ঘটনা, যেখানে দেখা গিয়েছিল যে একটি ইভিএম যন্ত্রে সেখানেই বোতাম টেপা হোক না কেন, রশিদ বিজেপি প্রার্থীর নামেই বেরোচ্ছে। তবে নির্বাচন কমিশনের তদন্তে অবশ্য সেই যন্ত্রে কোনো গণ্ডগোল ধরা পড়েনি।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here