‘বালাসাহেবের কথা ভেবে’ আদিত্যর বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ করল না ‘শিন্ডেসেনা’

0

মুম্বই: আস্থাভোটে একনাথ শিন্ডের সরকারের পক্ষে ভোট না দেওয়ায় আদিত্য ঠাকরের বিধায়ক পদ বাতিল করা হতে পারে, এই জল্পনা দানা বেঁধেছিল মহারাষ্ট্রের রাজনীতিতে। এ নিয়ে চর্চার আবহে নতুন মুখ্য সচেতক ভরত গোগাওয়ালে জানিয়ে দিলেন, হুইপ না মানলেও উদ্ধব-পুত্রের বিরুদ্ধে তাঁরা এই ধরনের কোনো পদক্ষেপ করা হচ্ছে না।

সংবাদসংস্থা এএনআইকে মুখ্য সচেতক বলেছেন, ‘‘যে সব বিধায়ক হুইপ মানেননি, তাঁদের সকলকে বিধায়ক পদ বাতিলের নোটিস দেওয়া হয়েছে। তবে আদিত্যকে এই নোটিস দেওয়া হয়নি। কারণ আমরা বালাসাহেব ঠাকরেকে সম্মান করি। মুখ্যমন্ত্রী এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবেন।’’

হুইপ না মানার কারণে উদ্ধব শিবিরের ১৬ জন বিধায়কের পদ বাতিল করার দাবি জানিয়ে স্পিকার রাহুল নরবেকরের কাছে পিটিশন জমা দিয়েছেন গোগাওয়ালে।

উল্লেখ্য, সোমবার আস্থাভোটে মুখ্যমন্ত্রী একনাথ শিন্ডেকে ভোট দেওয়ার জন্য হুইপ জারি করেন নবনিযুক্ত মুখ্য সচেতক ভরত গোগালিয়া। শিন্ডে সরকারের পক্ষে ভোট দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয় শিবসেনা বিধায়কদের। কিন্তু এই হুইপ মানেননি আদিত্য। তার জেরেই বিধায়ক পদ হারাতে পারেন বালাসাহেব-পৌত্র, এমন জল্পনা ছড়ায়।

অন্য দিকে, দলের হুইপ নিয়ে নতুন স্পিকার রাহুল নরবেকরের সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়েছে উদ্ধব শিবির। পিটিশনে উল্লেখ করা হয়েছে যে, একনাথ শিন্ডে-সহ ১৬ বিদ্রোহীর বিধায়ক পদ বাতিলের মামলার এখনও ফয়সালা হয়নি। এই প্রেক্ষিতে স্পিকারের হুইপ বৈধ নয়। সোমবার আস্থাভোটে ১৬৪ ভোট পেয়ে জয়ী হয় শিন্ডে-বিজেপি সরকার।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন