একঝাঁক সাংসদকে কোয়ারান্টাইনে পাঠালেন দুষ্মন্ত সিংহ, চিন্তা রাষ্ট্রপতিকে নিয়েও

0

খবর অনলাইনডেস্ক: বলিউডের জনপ্রিয় গায়ক কণিকা কপুরের শরীরে করোনাভাইরাসের (Coronavirus) সংক্রমণ প্রমাণিত হতেই গোটা সংসদেই কার্যত হইচই পড়ে গিয়েছে। এর মূল কারণ বিজেপি সাংসদ দুষ্মন্ত সিংহ (Dushmant Singh)। গত কয়েক দিন ধরে একাধিক সাংসদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন দুষ্মন্ত। তার জেরে রাজনৈতিক শিবিরের একটা বড়ো অংশই এখন নিজে থেকে কোয়ারান্টাইনে।

দু’ দিন আগেই বেশ কয়েক জন সাংসদকে নিয়ে রাষ্ট্রপতি ভবনে গিয়েছিলেন দুষ্মন্ত। প্রাতরাশের টেবিলে দেখা হয়েছিল রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের (Ramnath Kovind) সঙ্গে। ফলে উদ্বেগ বেড়েছে রাষ্ট্রপতিকে নিয়েও।

ওই বৈঠকে হাজির ছিলেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্র রাজ্যবর্ধন রঠৌর (Rajwardhan Singh Rathore), মথুরার সাংসদ হেমা মালিনী (Hema Malini), কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অর্জুন রাম মেঘওয়াল (Arjun Ram Meghawal), কংগ্রেসের কুমারী সেলজা (Kumari Selja) আর বক্সার তথা সাংসদ মেরি কম (Mary Kom)।

নিজেকে কোয়ারান্টাইনে বন্দি করে দিয়েছেন তৃণমূলের রাজ্যসভার সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়ানও (Derek O’brien)। তিনি বলেন, “দু’ দিন আগেই পরিবহণ কমিটির বৈঠকের জন্য দুষ্মন্তের সঙ্গে দু’ ঘণ্টা সময় কাটিয়েছি।” ওই বৈঠকে ছিলেন আপের সঞ্জয় সিংহ, কংগ্রেসের দীপন্দর সিংহ হুডা ও জিতিন প্রসাদ। সবাই ঘরবন্দি করে দিয়েছেন নিজেদের।

আরও পড়ুন ইতিহাসে প্রথমবার, করোনাভাইরাস ঠেকাতে বন্ধ হল কফি হাউস

এমনকি আগামী কয়েক দিনের যাবতীয় দেখাসাক্ষাৎ বন্ধ করে দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি কোবিন্দ।

উল্লেখ্য, শুক্রবার বিকেলে টুইট করে রাজস্থানের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বসুন্ধরা রাজে সিন্ধিয়া (Vasundhara Raje Scindia) জানান, “কিছু দিন আগে লখনউয়ে আমি একটি অনুষ্ঠানে আমার ছেলে দুষ্মন্তকে নিয়ে হাজির ছিলাম। ওই অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত ছিলেন গায়ক কণিকা কপুরও, দুর্ভাগ্যবশত যাঁর করোনাভাইরাসের পরীক্ষা পজিটিভ এসেছে। এই খবর জানার পরেই আমি আর আমার ছেলে স্বেচ্ছায় কোয়ারান্টাইনে চলে গিয়েছি। সতর্কতামূলক বাকি সব ব্যবস্থাও আমরা নিচ্ছি।”

এর পরেই হইচই পড়ে যায় গোটা সংসদে।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন