জয়পুর: পেহলু খানের হত্যার বিচার চেয়ে রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রী বসুন্ধরা রাজে সিন্ধিয়াকে খোলা চিঠি দিলেন ওই রাজ্যের ২৩ জন প্রাক্তন আইএএস অফিসার। ১৯৬৮-এর ব্যাচের ওই অফিসারদের মধ্যে রয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের প্রাক্তন রাজ্যপাল গোপালকৃষ্ণ গান্ধী। এই নৃশংস ঘটনায় জড়িতদের অবিলম্বে গ্রেফতার করার দাবি জানিয়েছেন তাঁরা। ১ এপ্রিল রাজস্থানের রামগড় থেকে গরু কিনে হরিয়ানায় নিজেদের বাড়িতে ফেরার পথে অলোয়ারে স্বঘোষিত গোরক্ষক বাহিনীর হাতে বেধড়ক প্রহারে প্রাণ হারান পেহলু খান। জখম হন আরও চার জন।

মুখ্যমন্ত্রীকে লেখা চিঠিতে প্রাক্তন আইএএস অফিসাররা বলেছেন, “অলোয়ারে পেহলু খানকে পিটিয়ে মারার ঘটনায় আমরা খুবই বিচলিত। এই ঘটনায় দোষীদের গ্রেফতারের ব্যাপারে সরকারের অনীহা এবং দীর্ঘসূত্রিতা দেখে এবং সরকার যা করেছে এবং যা করেনি, সে সব দেখে আমরা হতাশ।”

চিঠিতে বলা হয়েছে, “গরুর গুরুত্ব এবং তাদের নিধন বা খাওয়ার ব্যাপারে কারও কারও ভিন্ন ধরনের কড়া মনোভাব থাকতেই পারে, কিন্তু স্বৈরাচারী স্বঘোষিত রক্ষীবাহিনীর হাতে পেহলু খানের হত্যা আমাদের এটাই দেখিয়ে দেয়, যে মৌলিক নীতি ও মূল্যবোধ আমাদের জাতির ভিত্তি, সেই নীতি ও মূল্যবোধকে আমরা তলে তলে ধসিয়ে দিচ্ছি।”

পেহলু খানের হত্যাকারীদের গ্রেফতার করার দাবি ছাড়াও চিঠিতে গোরক্ষার নামে সমস্ত রকম পাহারাবাজি বন্ধ করা এবং কর্তব্যে গাফিলতির দায়ে সংশ্লিষ্ট পুলিশ ও প্রশাসনিক কর্মীদের শাস্তি দাবি করা হয়েছে।

গোপালকৃষ্ণ গান্ধী ছাড়াও চিঠিতে যাঁরা সই করেছেন তাঁদের মধ্যে আছেন অরুণ কুমার, অরুণা রায়, ওয়াজাহাত হবিবুল্লাহ, বিবেক কুমার অগ্নিহোত্রী, এস এস মীনাক্ষীসুন্দরম, মিহির কুমার মৈত্র প্রমুখ।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here