Connect with us

দেশ

শক্তিপ্রদর্শন গহলৌত শিবিরের, বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার প্রস্তাব

জয়পুর: সচিন পায়লটের (Sachin Pilot) বিদ্রোহকে ঘিরে এখন টালমাটাল পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে কংগ্রেসে। রাজস্থানের সরকার টিকবে কি না, সেই নিয়ে প্রশ্নচিহ্ন উঠে গিয়েছে। এরই মধ্যে সোমবার অশোক গহলৌত (Ashok Gehlot) শিবির শক্তিপ্রদর্শন করেছে। একই সঙ্গে, বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ারও প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে।

এ দিন দুপুরে কংগ্রেসের পরিষদীয় দলের বৈঠক হয়েছে জয়পুরে। কংগ্রেসের দাবি, ওই বৈঠকে ১০২ জন বিধায়ক হাজির হয়ে মুখ্যমন্ত্রী অশোক গহলৌতের সরকারের প্রতি সমর্থন জানিয়েছেন।

এমনকি, “দল আর সরকার বিরোধী কাজ করলে” দলীয় বিধায়কদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার প্রস্তাব গৃহীত হয়েছে এ দিনের বৈঠকে।

অন্য দিকে গুরুগ্রাম থেকে ‘বিদ্রোহী’ উপমুখ্যমন্ত্রী সচিন পায়লট বলেছেন, “অশোক গহলৌতের দাবি ভুল। আমার পাশে ২৫ জন বিধায়ক বসে রয়েছেন। আমরা কেউই কংগ্রেস পরিষদীয় দলের বৈঠকে যোগ দিতে জয়পুরে যাইনি।’’

এ দিন গহলৌতের বাসভবনে আয়োজিত বৈঠকে হাজির হওয়ার জন্য কংগ্রেস বিধায়কদের উদ্দেশে হুইপ জারি করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। গরহাজিরদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ারও হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু তা সত্ত্বেও বেশ কয়েকজন বিধায়ক যে এ দিন জয়পুরে ছিলেন না, গহলৌত শিবিরের দাবি থেকেই সে হিসেব স্পষ্ট।

তবে হাজির থাকা বিধায়কদের সঙ্গে ১০০ পেরোনোয় আপাতত গহলৌত কিছুটা হলেও ‘অ্যাডভান্টেজে’ রয়েছেন বলে মনে করছে রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা। সরকার ফেলে দেওয়ার মতো প্রয়োজনীয় সংখ্যা এখনও সচিন শিবিরের কাছে নেই বলেই মনে করা হচ্ছে।

পাশাপাশি সচিন পায়লটের ক্ষোভ প্রশমনের চেষ্টাও চালাচ্ছে কংগ্রেস। এ দিন সকালেই জয়পুরে হাজির হন সনিয়া গান্ধীর ‘দূত’ রণদীপ সিংহ সুরজেওয়ালা। সনিয়া এবং রাহুলের সঙ্গে আলোচনা করে সমস্যা মিটিয়ে নেওয়ার জন্য সচিনকে বার্তা দিয়েছেন তিনি।

সূত্রের খবর, কংগ্রেস শিবিরকে তিনটে শর্ত দিয়েছেন সচিন। প্রথমত, অর্থ এবং স্বরাষ্ট্র দফতর তাঁর শিবিরকে দিতে হবে। তাঁর অনুগামী চার বিধায়ককে মন্ত্রী করতে হবে এবং উপমুখ্যমন্ত্রী পদের পাশাপাশি প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি পদেও তাঁকে বহাল রাখতে হবে।

জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়ার মতো তিনিও বিজেপিতে যেতে পারেন বলে জল্পনা ছড়ালেও, এ দিন সকালে সচিন জানিয়েছেন তিনি গেরুয়া শিবিরে যাচ্ছেন না। চাপের মধ্যেও এটা ভরসা দিচ্ছে গহলৌত শিবিরকে।

দেশ

হাইকোর্টে সাময়িক স্বস্তি অশোক গহলৌতের

এই মামলার শুনানি সিঙ্গল বেঞ্চের উপর ছেড়ে দেওয়া হল। ১১ আগস্ট এ ব্যাপারে আদলত কোনো নির্দেশ দিতে পারে।

অশোক গহলৌত। ফাইল ছবি

জয়পুর: বিএসপি-র (BSP) ছয় বিধায়কের রাজস্থানের কংগ্রেস সরকারকে সমর্থনের উপর অস্থায়ী ভাবে স্থগিতাদেশের আবেদনটি খারিজ করে দিল রাজস্থান হাইকোর্ট। এই মামলার শুনানি সিঙ্গল বেঞ্চের উপর ছেড়ে দেওয়া হল।

রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রী অশোক গহলৌতের (Ashok Gehlot) উপরে ক্রমাগত চাপ বাড়িয়ে আসছে বিজেপি। বিদ্রোহী কংগ্রেস নেতা সচিন পাইলটের (Sachin Pilot) একের পর এক পদক্ষেপ সামাল দিতে সুপ্রিম কোর্টে পর্যন্ত যেতে হয়েছে রাজস্থান সরকারকে। তার উপর আরও একটি চাপ সৃষ্টি করেছে বিএসপির প্রাক্তন ছয় বিধায়কের কংগ্রেসে যোগদান। বিজেপি আর বিএসপির আবেদনের ভিত্তিতে কংগ্রেসে যোগ দেওয়া বিএসপির প্রাক্তন ছ’জন বিধায়ককে নোটিশ দিয়েছিল রাজস্থান হাইকোর্ট। তবে আপাতত সেই সংকটে কিছুটা হলেও স্বস্তি মিলল অশোক-শিবিরের।

আশা করা হচ্ছে, আগামী ১১ আগস্ট এ ব্যাপারে আদলত কোনো নির্দেশ দিতে পারে। আগামী ১৪ আগস্ট রাজস্থান বিধানসভার অধিবেশন শুরু হতে পারে। যেখানে আস্থাভোটে যেতে পারেন গহলৌত। তবে তার আগেই ১১ আগস্টের নির্দেশের প্রেক্ষিতে আগামী ১৪ আগস্টের মধ্যে ফের আদালতের দ্বারস্থ হতে পারেন বিধানসভার অধ্যক্ষ সিপি জোশী।

সূত্রের খবর, অশোক গহলৌতের পক্ষে ১০২ জন বিধায়কের সমর্থন রয়েছে, যা সংখ্যাগরিষ্ঠতা থেকে মাত্র একটা বেশি। কিন্তু বিএসপির ছ’জনকে বাদ দিলে সেই সংখ্যা ৯৬-এ নেমে আসতে পারে। ২০০ আসনের রাজস্থান বিধানসভায় বিজেপির বিধায়ক সংখ্যা ৭২। বিদ্রোহী কংগ্রেস বিধায়ক এবং তিনজন নির্দল বিধায়ক মিলে সেই সংখ্যা ৯৭-এ পৌঁছাতে বলে অনুমান। কিন্তু সংখ্যাগরিষ্ঠতা প্রমাণের জন্য ১০১টি আসনের থেকে তা কম!

অন্য দিকে পাইলট শিবিরে তাদের পক্ষে ৩০ জন বিধায়কের সমর্থন রয়েছে বলে দাবি করলেও এখনও পর্যন্ত ১৯ জন বিধায়কের বেশি কাউকে খুঁজে পাওয়া যায়নি বলেই জানা গিয়েছে।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালের সেপ্টেম্বরে বিএসপির ছয় বিধায়ককে কংগ্রেসে সংযুক্ত করার অনুমতি দেওয়া অধ্যক্ষের সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে আদালত গিয়েছিল বিএসপি এবং বিজেপি। তারা সম্ভাব্য আস্থাভোটে ওই ছয় বিধায়কের অংশগ্রহণের উপর স্থগিতাদেশ চেয়ে হাইকোর্টে যায়।

Continue Reading

দেশ

করোনা কাঁটায় ঝিমিয়ে অর্থনীতি, রেপো রেট অপরিবর্তিত রাখল ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্ক

শক্তিকান্ত দাস। ফাইল ছবি

ওয়েবডেস্ক: ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্ক (RBI) বৃহস্পতিবার মুদ্রাস্ফীতির সাম্প্রতিক বৃদ্ধি এবং করোনাভাইরাস মহামারির (Coronavirus pandemic) প্রভাবজনিত কারণে রেপো রেট এবং অন্যান্য মূল হারগুলি অপরিবর্তিত রেখে দিল।

আরবিআইয়ের গভর্নর শক্তিকান্ত দাস বলেন, “কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্কের মুদ্রানীতি কমিটি সর্বসম্মত ভাবে মূল হারগুলি অপরিবর্তিত রাখার এবং অনুকূল অবস্থান বজায় রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কোভিড-১৯ (Covid-19) পরিস্থিতিতে যতক্ষণ না অর্থনীতির সংকট কাটিয়ে ওঠা সম্ভব হচ্ছে, পাশাপাশি মুদ্রাস্ফীতি অব্যাহত থাকছে ততদিন পর্যন্ত এ ভাবেই মেপে পা ফেলতে হবে”।

তিনি বলেন, লকডাউনের মধ্যেই এপ্রিল-মে মাসের প্রথমদিকে দেশে অর্থনৈতিক ক্রিয়াকলাপ পুনরায় শুরু হয়েছিল। তবে কোভিড -১৯ সংক্রমণের বৃদ্ধির ফলে বেশ কয়েকটি রাজ্যে বেশ কিছু শহরে এখনও পর্যন্ত লকডাউন জারি রাখতে বাধ্য হচ্ছে। একই সঙ্গে শুধু এ দেশ নয়, গোটা বিশ্বই করোনার প্রভাবে অর্থনৈতিক সংকটে পড়েছে।

সংবাদ মাধ্যমের উদ্দেশে একটি ভার্চুয়াল ভাষণে আরবিআই গভর্নর বলেন, ২০২০-২১ আর্থিক বছরের প্রথমার্ধ অথবা প্রায় পুরোটা জুড়েই দেশের জিডিপি (GDP) সংকুচিত হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

সুদের হার এখন কত?

এ দিন আরবিআইয়ের ছয় সদস্যের মুদ্রানীতি কমিটি বা মনিটারি পলিসি কমিটি (MPC) এই সিদ্ধান্ত নেয়। জানানো হয়, রেপো রেট ৪ শতাংশই রয়ে গেল, রিভার্স রেপো রেট রইল ৩.৩৫ শতাংশ। রেপো রেট সেই হার, যাতে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অন্য ব্যাঙ্কগুলিকে ঋণ দেয়। রিভার্স রেপো রেট, যে হারে আরবিআই অন্য ব্যাঙ্ক থেকে ঋণ গ্রহণ করে।

আরবিআই গভর্নরের আশঙ্কা!

কয়েক সপ্তাহ আগে একটি ভার্চুয়াল বৈঠকে অংশ নিয়ে আরবিআই গভর্নর বলেন, “কোভিড-১৯ মহামারি এক দিকে যেমন স্বাস্থ্য ক্ষেত্রে প্রভাব ফেলেছে, তেমনই এই পরিস্থিতির জেরে সংকটে পড়েছে অর্থনীতিও। উৎপাদন থেকে শুরু করে কাজের উপরও খাড়া নেমে এসেছে। সব মিলিয়ে এই পরিস্থিতি শেষ একশো বছরে স্বাস্থ্য এবং অর্থনীতির কাছে সব থেকে বড়ো সংকটের চেহারা নিয়েছে”।

তিনি বলেন, “কোভিড-১৯ প্রাদুর্ভাব সারা বিশ্বে থাবা বসিয়েছে। যে কারণে বর্তমানে বিশ্বব্যাপীমান শৃঙ্খলা, শ্রম এবং মূলধন লেনদেন এবং সারা বিশ্বের বিশাল অংশের মানুষের আর্থ-সামাজিক অবস্থার উপর যে ব্যাপক প্রভাব ফেলেছে, তা বলাই বাহুল্য”।

Continue Reading

দেশ

কাশ্মীরে জঙ্গিদের গুলিতে নিহত সরপঞ্চ তথা বিজেপি নেতা

এই নিয়ে গত কয়েক সপ্তাহে চার বার বিজেপি নেতাদের ওপরে আক্রমণের ঘটনা ঘটল।

খবরঅনলাইন ডেস্ক: জঙ্গিদের গুলিতে কাশ্মীরে (Jammu and Kashmir) নিহত হলেন বিজেপি নেতা তথা এক গ্রামের সরপঞ্চ। বৃহস্পতিবার সকালে এই ঘটনাটি ঘটেছে।

শ্রীনগর থেকে ৭০ কিলোমিটার দূরের কুলগাম জেলার কাজিগুন্ডে এ দিন এই ঘটনাটি ঘটেছে। কুলগামের বিজেপি জেলাসভাপতি সাজাদ আমহেদকে লক্ষ করে গুলি করে জঙ্গিরা। তিনি কুলগামেরই একটি পঞ্চায়েতের সরপঞ্চ ছিলেন।

অনন্তনাগের একটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় ওই নেতাকে। তবে হাসপাতালে পৌঁছোনোর আগে পথেই মৃত্যু হয় তাঁর।

এই নিয়ে গত কয়েক সপ্তাহে চার বার বিজেপি নেতাদের ওপরে আক্রমণের ঘটনা ঘটল। গত মাসের শেষ দিকে বন্দিপোরার জেলা সভাপতি ওয়াসিম বারিকে খুন করে জঙ্গিরা। হত্যা করা হয় তাঁর বাবা আর ভাইকেও।

ওই হামলার দায় শিকার করেছিলেন ‘দ্য রিজিজস্টান্স ফোর্স’ নামক নতুন একটি জঙ্গি সংগঠন। পুলিশের দাবি, লস্কর, জৈশ আর হিজবুলের যৌথ ফ্রন্ট এই জঙ্গি সংগঠনটি।

Continue Reading
Advertisement
দেশ7 hours ago

কোভিড আপডেট: নতুন করে আক্রান্ত ৫৬২৮২, সুস্থ ৪৬১২১

গাড়ি ও বাইক1 day ago

পেট্রোলচালিত গাড়ি ‘এস-ক্রস’ বাজারে নিয়ে এল মারুতি সুজুকি

ক্রিকেট1 day ago

আইপিএলের নিয়মাবলি: গুচ্ছের টেস্টিং, চলা-ফেরায় নিয়ন্ত্রণ, একটি দলের জন্য একটি হোটেল

দেশ1 day ago

রুপোর ইট দিয়ে রামমন্দিরের শিলান্যাস করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

ক্রিকেট1 day ago

অঘটন! ৩২৯ তাড়া করে বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের হারাল আয়ারল্যান্ড

ক্রিকেট2 days ago

বিতর্কের মধ্যেই আইপিএলের সঙ্গত্যাগ করল চিনা সংস্থা ভিভো

রাজ্য3 days ago

লকডাউনের সূচি ফের বদলাল রাজ্যে

দেশ2 days ago

কোভ্যাক্সিনের ট্রায়ালের শুরুতেই হোঁচট! কুড়ি শতাংশ স্বেচ্ছাসেবকের শরীরে মিলল করোনার অ্যান্টিবডি

রবিবারের খবর অনলাইন

কেনাকাটা

কেনাকাটা16 hours ago

শুরু হল অ্যামাজন প্রাইম ডে সেল, জেনে নিন কোন জিনিসে কত ছাড়

খবরঅনলাইন ডেস্: শুরু হল অ্যামাজন প্রাইম ডে সেল। চলবে ২ দিন। চলতি মাসের ৬ ও ৭ তারিখ থাকছে এই অফার।...

things things
কেনাকাটা6 days ago

করোনা আতঙ্ক? ঘরে বাইরে এই ১০টি জিনিস আপনাকে সুবিধে দেবেই দেবে

খবরঅনলাইন ডেস্ক : করোনা পরিস্থিতিতে ঘরে এবং বাইরে নানাবিধ সাবধানতা অবলম্বন করতেই হচ্ছে। আগামী বেশ কয়েক মাস এই নিয়মই অব্যাহত...

কেনাকাটা1 week ago

মশার জ্বালায় জেরবার? এই ১৪টি যন্ত্র রুখে দিতে পারে মশাকে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: একে করোনা তায় আবার ডেঙ্গুর প্রকোপ শুরু হয়েছে। এই সময় প্রতি বারই মশার উৎপাত খুবই বাড়ে। এই বারেও...

rakhi rakhi
কেনাকাটা2 weeks ago

লকডাউন! রাখির দারুণ এই উপহারগুলি কিন্তু বাড়ি বসেই কিনতে পারেন

সামনেই রাখি। কিন্তু লকডাউনের মধ্যে মনের মতো উপহার কেনা একটা বড়ো ঝক্কি। কিন্তু সেই সমস্যা সমাধান করতে পারে অ্যামাজন। অ্যামাজনের...

কেনাকাটা2 weeks ago

অনলাইনে পড়াশুনা চলছে? ল্যাপটপ কিনবেন? দেখে নিন ৪০ হাজার টাকার নীচে ৬টি ল্যাপটপ

ইনটেল প্রসেসর সহ কোন ল্যাপটপ আপনার অনলাইন পড়াশুনার কাজে লাগবে জেনে নিন।

কেনাকাটা2 weeks ago

করোনা-কালে ঘরে রাখতে পারেন ডিজিটাল অক্সিমিটার, এই ১০টির মধ্যে থেকে একটি বেছে নিতে পারেন

শরীরে অক্সিজেনের মাত্রা বুঝতে সাহায্য করে এই অক্সিমিটার।

কেনাকাটা3 weeks ago

লকডাউনে সামনেই রাখি, কোথা থেকে কিনবেন? অ্যামাজন দিচ্ছে দারুণ গিফট কম্বো অফার

খবরঅনলাইন ডেস্ক : সামনেই রাখি। কিন্তু লকডাউনের মধ্যে দোকানে গিয়ে রাখি, উপহার কেনা খুবই সমস্যার কথা। কিন্তু তা হলে উপায়...

laptop laptop
কেনাকাটা3 weeks ago

ল্যাপটপ কিনবেন? দেখে নিন ২৫ হাজার টাকার মধ্যে এই ৫টি ল্যাপটপ

খবরঅনলাইন ডেস্ক : কোভিভ ১৯ অতিমারির প্রকোপে বিশ্ব জুড়ে চলছে লকডাউন ও ওয়ার্ক ফ্রম হোম। অনেকেই অফিস থেকে ল্যাপটপ পেয়েছেন।...

কেনাকাটা4 weeks ago

হ্যান্ডওয়াশ কিনবেন? নামী ব্র্যান্ডগুলিতে ৩৮% ছাড় দিচ্ছে অ্যামাজন

খবরঅনলাইন ডেস্ক : করোনাভাইরাস বা কোভিড ১৯ এর সঙ্গে লড়াই এখনও জারি আছে। তাই অবশ্যই চাই মাস্ক, স্যানিটাইজার ও হ্যান্ডওয়াশ।...

কেনাকাটা4 weeks ago

ঘরের একঘেয়েমি আর ভালো লাগছে না? ঘরে বসেই ঘরের দেওয়ালকে বানান অন্য রকম

খবরঅনলাইন ডেস্ক : একে লকডাউন তার ওপর ঘরে থাকার একঘেয়েমি। মনটাকে বিষাদে ভরিয়ে দিচ্ছে। ঘরের রদবদল করুন। জিনিসপত্র এ-দিক থেকে...

নজরে

Click To Expand