zakia jafri

গান্ধীনগর (গুজরাত) গুজরাত দাঙ্গায় নিহত কংগ্রেস এমপি এহসান জাফরির পত্নী জাকিয়া জাফরির আর্জি টিকল না গুজরাত হাইকোর্টে।  গুজরাত দাঙ্গায় তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে পুনরায় তদন্তের আবেদন খারিজ করে দিল হাইকোর্ট।

২০০২ সালের দাঙ্গায় বৃহত্তর ষড়যন্ত্রের অভিযোগ করে নরেন্দ্র মোদী এবং আরও ৫৭ জনের বিরুদ্ধে তদন্ত করানো এবং তাঁদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার আবেদন জানিয়েছিলেন জাকিয়া জাফরি এবং সমাজকর্মী তিস্তা সেতলবাদের সংগঠন ‘সিটিজেন ফর জাস্টিস অ্যান্ড পিস’।

গুজরাত দাঙ্গা নিয়ে তদন্ত করার জন্য যে বিশেষ তদন্তকারী দল (সিট) গঠিত হয়, সেই দল বৃহত্তর ষড়যন্ত্রের অভিযোগ থেকে তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও অন্যদের অব্যাহতি দেয়। সিট-এর এই ‘ক্লিন চিট’ বহাল রাখে নিম্ন আদালত। নিম্ন আদালতের সেই রায়ের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে আবেদন করেছিলেন জাকিয়া জাফরি ও সিটিজেন ফর জাস্টিস অ্যান্ড পিস’।

ওই আবেদন নিয়ে রায় দিতে গিয়ে গুজরাত হাইকোর্ট জানিয়ে দেয়, গুজরাত দাঙ্গায় ‘কোনো বৃহত্তর ষড়যন্ত্র ছিল না’। বিচারপতি সোনিয়া গোকানি বলেন, যে বিশেষ আদালত গুলবর্গ সোসাইটি গণহত্যা নিয়ে তদন্ত পরিচালনা করেছিল, তারা ষড়যন্ত্রের বিষয়টি সমান ভাবে খতিয়ে দেখেছেন।

তবে আরও তদন্তের জন্য সিট-কে নির্দেশ দেওয়ার কোনো ক্ষমতা তাদের নেই বলে নিম্ন আদালত যে রায় দিয়েছে, তাকে জাফরিরা চ্যালেঞ্জ জানাতে পারেন বলে হাইকোর্ট জানিয়ে দিয়েছে।

উল্লেখ্য,  ২০০২ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারি অমদাবাদের গুলবর্গ সোসাইটি গণহত্যায় খুন হন জাকিয়া জাফরির স্বামী এহসান জাফরি সহ ৬৮ জন।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here