hadiya

নয়াদিল্লি: কেরলের লাভ জিহাদ মামলায় উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন। কোনো রকম চাল নয়, বরং নিজের ইচ্ছেতেই বিয়ে করেছে হাদিয়ে ওরফে অখিলা অশোকন। সুপ্রিম কোর্টে জমা দেওয়া স্ট্যাটাস রিপোর্টে সাফ জানিয়ে দিল জাতীয় তদন্তকারী সংস্থা (এনআইএ)।

এই ব্যাপারে কেন্দ্রের এক আধিকারিক বলেন, “হাদিয়া আমাদের জানিয়ে দিয়েছে, সম্পূর্ণ নিজের ইচ্ছেতেই সুফিন জহাঁকে বিয়ে করেছে সে। নিজের ইচ্ছেতেই সে ধর্মান্তরিত হয়েছে।” এই বিয়ের পরে কোনো রকম আর্থিক সাহায্য পাওয়ার কথাও খণ্ডন করে দিয়েছে হাদিয়া।

এনআইএ-এর এই বিবৃতি খুব তাৎপর্যপূর্ণ। কারণ সুফিনের বিরুদ্ধে কোনো তদন্ত করার ক্ষেত্রেই হাদিয়া চাপে ছিল কি না, সেটাই সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ। ওই আধিকারিকের কথায়, “হাদিয়ার বাবা বারবার বোঝাতে চেয়েছিলেন যে হাদিয়া নাকি মানসিক চাপের মধ্যে এমন কথা বলছে, কিন্তু এর কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি।”

আরও পড়ুন কেরল লাভ জেহাদ: দ্রুত গোপন শুনানির জন্য হাদিয়ার বাবার আবেদন খারিজ সুপ্রিম কোর্টে

হাদিয়ার বিয়ের ক্ষেত্রে কোনো আর্থিক লেনদেনের কোনো প্রমাণ পায়নি এনআইএ। তবে আদালতে জমা দেওয়া রিপোর্টে এনআইএ জানিয়েছে, কেরলে এ রকম কিছু সংগঠন আছে, যারা আর্থিক লোভ দেখিয়ে চাপ সৃষ্টি করিয়ে বিয়ে দেয়।

উল্লেখ্য, গত আগস্টে এই মামলার শুনানিতে এনআইএকে তদন্ত করার নির্দেশ দিয়েছিল সুপ্রিম কোর্ট। সোমবার আদালতে পরবর্তী শুনানি। সেই দিন আদালতে হাদিয়াকে উপস্থিত থাকার নির্দেশ দিয়েছে প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্রর ডিভিশন বেঞ্চ।

 

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here