ভোপাল: তিনদিন হয়ে গেল, তাঁর খোঁজ নেই। পুলিশ তাঁকে হন্য হয়ে খুঁজছে। কিন্তু তিনি ফেরার। ২০০৯ সালের এক কংগ্রেস নেতার খুনের ঘটনায় তাঁকে আদালতে হাজির করানোর নির্দেশ দিয়েছে আদালত। আর তাই গত মঙ্গলবার থেকে তাঁকে খুঁজে চলেছে ভিন্দ জেলার পুলিস। পুলিস সুপার জানিয়েছেন তাঁকে গ্রেফতার করবেনই।

তিনি লাল সিং আর্য। মধ্যপ্রদেশের ‘সুখের মন্ত্রী’। হ্যাপিনেস মিনিস্টার। দেশের একমাত্র সুখের মন্ত্রী তিনি। চলতি বছরের জানুয়ারি মাসে মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহান, সে রাজ্যের মানুষের ‘সুখ এবং সহনশীলতা’ বাড়াতে এই মন্ত্রকটি তৈরি করে দায়িত্ব দেন লাল সিং আর্যকে। এই মন্ত্রকটি ছাড়াও আরও পাঁচটি মন্ত্রকের দায়িত্বে রয়েছেন লাল সিং। মনে করা হচ্ছে, আদালতের নির্দেশের পর তাঁকে পদত্যাগ করতে বলবেন মুখ্যমন্ত্রী।

ভূটানের ‘মোট জাতীয় সুখ’ সূচক থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে এমন একটি মন্ত্রক তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়েছিল মধ্যপ্রদেশ। সে রাজ্যের মানুষের জন্য ‘সুখ সূচক’ তৈরির পরিকল্পনাও রয়েছে মধ্যপ্রদেশ সরকারের। যোগ, ধ্যান, বয়স্ক মানুষদের নিখরচায় তীর্থযাত্রার ব্যবস্থা করার মধ্য দিয়েই রাজ্যবাসীকে সুখি করতে চায় রাজ্য সরকার।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here