আক্রমণ আসছে ঘনঘন। তা আবার যে সে তরফ থেকে নয়, খোদ শাসকশিবির থেকে। কিন্তু তাতে দমে যাওয়ার পাত্রী নন রামিয়া।

‘পাকিস্তান নরক নয়’, এই কথা বলে বিজেপির রোষের মুখে পড়েছেন কন্নড় অভিনেত্রী তথা প্রাক্তন এই কংগ্রেস সাংসদ। বৃহস্পতিবার রাতে তাঁকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখাতে থাকে বিজেপির যুব মোর্চা। মেঙ্গালুরু বিমানবন্দরে তাঁর কনভয়কে আটকে দেয় বিজেপি সমর্থকরা। তাঁকে উদ্দেশ করে কালো পতাকা দেখানো আর ডিম ছোড়া হয় বলে অভিযোগ। এই ডিম ছোড়া প্রসঙ্গে শুক্রবার রামিয়ার সহাস্য মন্তব্য, “ডিম আমার খুব প্রিয়। আমি রোজ ডিম খাই”।

এই প্রসঙ্গে রামিয়ার পাশেই দাঁড়িয়েছেন কর্ণাটকের কৃষিমন্ত্রী কৃষ্ণ বীরে গৌড়া। তিনি বলেছেন, “হিন্দু শব্দটি এসেছে সিন্ধু উপত্যকা থেকে, যেটি এখন  পাকিস্তানে। পাকিস্তানকে নরকের সাথে তুলনা করা মানে হিন্দুত্বর জন্মভূমিকেই নরকের সাথে তুলনা করা”। তাঁর কথায়, “সাড়ে ৩ হাজার বছর ধরে ভারত আর পাকিস্তান একসাথে ছিল, মাত্র ৭০ বছরই তো হয়েছে আমরা আলাদা হয়েছি”।   

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here