খবরঅনলাইন ডেস্ক: রেকর্ড তৈরি করে শুক্রবার দেশ জুড়ে এক কোটিরও বেশি টিকাকরণ হল ভারতে। দৈনিক টিকাকরণের নিরিখে রেকর্ড করল পশ্চিমবঙ্গও। টিকাকরণের এই পরিসংখ্যান প্রকাশিত হওয়ার পর টিকাকরণ কর্মসূচিতে যুক্ত সকলকে অভিনন্দন জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

শুক্রবার রাতে মোদী টুইটারে প্রধানমন্ত্রী লিখেছেন, “আজ (শুক্রবার) রেকর্ড সংখ্য়ক টিকাকরণ হয়েছে। ১ কোটির বেশি টিকা দেওয়া হয়েছে। যাঁরা টিকা নিয়েছেন এবং এই টিকাকরণ কর্মসূচিকে সফল করেছেন, তাঁদের সকলকে অভিনন্দন।”

দৈনিক টিকাকরণের নিরিখে দেশে ৯০ লক্ষের বেশি টিকা দেওয়া হয়েছে বলে প্রথমে শুক্রবার সন্ধ্যায় টুইট করে জানিয়েছিলেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী মনসুখ মাণ্ডবিয়া। টুইটারে এ নিয়ে দেশবাসীকে অভিনন্দনও জানান তিনি। টুইটে তিনি লেখেন, “দেশবাসীকে অভিনন্দন। আজ (শুক্রবার) এখনও পর্যন্ত ভারতে ঐতিহাসিক ৯০ হাজারের টিকা দেওয়া হয়েছে। এবং এই সংখ্যা ক্রমেই বাড়ছে।”

পরে অবশ্য কোউইন-এর ওয়েবসাইট থেকে দেখা যায় যে দেশে শুক্রবার রাত পর্যন্ত ১ কোটি ৩ লক্ষ ৯৯২ জনকে টিকা দেওয়া হয়েছে। এখনও পর্যন্ত ভারতে মোট ৬২ কোটি ২১ লক্ষ ৩৯ হাজার ৪৯৮টি টিকা দেওয়া হয়েছে। এর মধ্যে অন্তত একটি টিকা পেয়েছেন ৪৮ কোটি ১২ লক্ষ ৪৬ হাজার ৫৯০ জন, অর্থাৎ দেশের মোট জনসংখ্যার ৩৪.৩ শতাংশ।

দুটি টিকা নিয়ে করোনার বিরুদ্ধে সুরক্ষা লাভ করেছেন দেশের ১৪ কোটি ৮ লক্ষ ৯২ হাজার ৯০৮ জন, অর্থাৎ মোট জনসংখ্যার ১০ শতাংশ।

রেকর্ড পশ্চিমবঙ্গেরও

দৈনিক টিকাকরণের নিরিখে শুক্রবার রেকর্ড করেছে পশ্চিমবঙ্গও। এ দিন রাজ্যে টিকা দেওয়া হয়েছে ৫ লক্ষ ৫৩ হাজার ৬৭ জনকে, যা এখনও পর্যন্ত একদিনে সর্বোচ্চ। রাজ্যে এখনও পর্যন্ত মোট ৩ কোটি ৮৬ লক্ষ ৩২ হাজার ৯৬৫টি টিকার ডোজ দেওয়া হয়েছে।

এর মধ্যে অন্তত একটি ডোজ নিয়েছেন এমন মানুষের সংখ্যা ২ কোটি ৭৭ লক্ষ ৫৬ হাজার ৫৪৪। অর্থাৎ রাজ্যের মোট জনসংখ্যার মোটামুটি ৩০ শতাংশ মানুষ টিকার একটি ডোজ পেয়েছেন। দুটি ডোজ নিয়ে করোনার বিরুদ্ধে সম্পূর্ণ সুরক্ষা লাভ করেছেন ১ কোটি ৮ লক্ষ ৭৬ হাজার ৪২১ জন, অর্থাৎ মোট জনসংখ্যার ১১.৬ শতাংশ মানুষ।

আরও পড়তে পারেন

টোকিও প্যারালিম্পিক ২০২০: ফাইনালে উঠলেন ভাবিনা পটেল, রুপো নিশ্চিত

এলআইসি-র শেয়ার বেচতে ১০টি ব্যাঙ্ককে বেছে নিল সরকার

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন