Francois-Hollande
ফ্রাঁসোয়া ওঁলান্দে ও নরেন্দ্র মোদী, গুরগাঁওয়ের একটি অনুষ্ঠানের ফাইলচিত্র

ওয়েবডেস্ক: কেন্দ্রের শাসক দল বিজেপি বনাম বিরোধী কংগ্রেসের রাফাল বিতর্কে নতুন মাত্রা যোগ করলেন ফ্রান্সের প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি ফ্রাঁসোয়া ওঁলাদে। তিনি ফ্রান্সের সংবাদ মাধ্যমের কাছে জানান, ভারতের সঙ্গে এই যুদ্ধবিমান কেনার চুক্তিতে ব্যবসায়ী অনিল অম্বানির সংস্থা রিলায়েন্সকে বরাত দেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছিল ভারত-ই।

রাফাল বিতর্ককে কেন্দ্র করে প্রাক্তন ফরাসি প্রেসিডেন্টের এই বিস্ফোরক অভিযোগ নিয়ে বিজেপি-কে আক্রমণের নতুন হাতিয়ার পেয়ে গেল কংগ্রেস। মধ্যপ্রদেশের বিধানসভা নির্বাচনের প্রচারে কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সভাপতি রাহুল গান্ধী দাবি করেন, “যিনি দেশের চৌকিদারির অঙ্গীকার করেছিলেন, তিনিই এখন চুরি করছেন”। মূলত রাফাল চুক্তিকে কেন্দ্র করে প্রধানমন্ত্রী-ঘনিষ্ট ব্যবসায়ীকে বরাত পাইয়ে দেওয়ার প্রতিবাদেই রাহুল এ ধরনের মন্তব্য করেন। এর পরেই বিজেপির তরফে পাল্টা দাবি করা হয়, ভিত্তিহীন ও অসত্য তথ্য উত্থাপন করছেন রাহুল। এ ব্যাপারে মুখ খোলেন স্বয়ং কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি। তিনি বলেন, রাহুল গান্ধী মোদীর বিরুদ্ধে যে মিথ্যাচার করছেন, তা মানুষকে বিশ্বাস করানো সম্ভব নয়।

কিন্তু প্রাক্তন ফরাসি প্রেসিডেন্টের বক্তব্যের পরই যথেষ্ট বিড়ম্বনা বেড়েছে বিজেপির। কারণ, ফরাসি সংবাদ মাধ্যমের কাছে মুখ খুলতেই ওঁলান্দের বক্তব্য তীব্র আলোড়ন ফেলে দিয়েছে। ভারত-ফ্রান্স রাফাল চুক্তির সময় ওঁলাদেই ছিলেন সে দেশের রাষ্ট্রপতি। তিনি বলেন, “রিলায়েন্সকে অর্ডার না দিয়ে আমাদের উপায় ছিল না। কারণ এই চুক্তিতে রিলায়েন্সকেই অন্তর্ভুক্ত করতে হবে বলে সরাসরি প্রস্তাব দিয়েছিল ভারত সরকার”।

ওঁলাদের মন্তব্য প্রকাশ্যে আসার পরেই গত শুক্রবার সাংবাদিক বৈঠক ডাকে কংগ্রেস। সেখানে দাবি করা হয়, কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি এবং প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারামন সবই জানেন। তবুও ভারতবাসীকে বোকা বানানোর জন্য তাঁরা মিথ্যা কথা বলে চলেছেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন