Kerala Flood
কেরলের বন্যার একটি ছবি

কলকাতা: ১৯৯৩ সালের বউবাজার বিস্ফোরণ মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি শেখ আজিজ। সেই বন্দিই কেরলের বন্যা ত্রাণে এক লক্ষ টাকা দান করতে চান। জেলের মধ্যে যে পারিশ্রমিক আয় হয়েছে আজিজের সেখান থেকে এই টাকা তিনি দিতে চান।

সারা দিনে আট ঘণ্টা কাজ করলে ২০০ থেকে ২৮০ টাকা করে পারিশ্রমিক পান বন্দিরা। আজিজের এই প্রস্তাব প্রথমে পাঠানো হয়েছে জেল সুপারের কাছে। সেখান থেকে যাবে কারা দফতরের ডিজির কাছে। এরপরে কারা সচিবের থেকে কারা মন্ত্রকের কাছে প্রস্তাব পৌঁছলে তিনি এই ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন।

এই মুহূর্তে প্রস্তাবটি ডিজি অরুণ গুপ্তার কাছে রয়েছে। তবে কারামন্ত্রী উজ্জ্বল বিশ্বাস জানিয়েছেন, “এটা খুব সুন্দর একটা প্রস্তাব। আমার টেবিলে এই প্রস্তাব পৌঁছালে সঙ্গে সঙ্গেই এটা পাশ করিয়ে দেব আমি।”

আরও পড়ুন কেরলের মতো পরিস্থিতি কি কখনও কলকাতা-সহ পশ্চিমবঙ্গে হতে পারে?

জানা যায, ১৯৯৩ সালে বউবাজার বিস্ফোরণ মামলার মূল চক্রি রশিদ খানের সাগরেদ হিসেবে কাজ করতেন আজিজ। বিস্ফোরণে ৬৯ জনের মৃত্যু হয়।

উল্লেখ্য, কেরলের বন্যা দুর্গতদের পাশে দাঁড়ানোর এ রকম উদাহরণ কিছুদিন আগেও ঘটেছে। এ মাসের শুরুর দিকে কেরলের কান্নুর সেন্ট্রাল জেলের বন্দিরা সাড়ে চার লক্ষ টাকা তুলে দিয়েছিলেন বন্যা ত্রাণ তহবিলে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন