খবরঅনলাইন ডেস্ক: খাবারে বিষ মিশিয়ে খুন করার চেষ্টা করা হয়েছিল তাঁকে। এমনই বিস্ফোরক অভিযোগ করলেন ইসরোর (ISRO) অভিজ্ঞ বিজ্ঞানী তপন মিশ্র। সামাজিক মাধ্যমে একটি পোস্টের মধ্যে দিয়ে গোটা ঘটনার কথা তুলে ধরেছেন তিনি। কেন্দ্র সরকারের কাছে বিষয়টি খতিয়ে দেখার আবেদনও জানিয়েছেন ওই বিজ্ঞানী।

তিন বছর আগের ঘটনা

মঙ্গলবার পোস্টটি করেছেন ওই বিজ্ঞানী। সেখানেই তিনি জানান, ২০১৭ সালের ২৩ মে অর্থাৎ প্রায় তিন বছর আগে মারাত্মক আর্সেনিক জাতীয় বিষ খাইয়ে তাঁকে মেরে ফেলার চেষ্টা হয়েছিল। সেই সময় তিনি ইসরোর হেডকোয়ার্টারে একটি সাক্ষাৎকার দিচ্ছিলেন।

তাঁর অভিযোগ, সেই সময়ই বিকেলের খাবারে তাঁকে ধোসা পরিবেশন করা হয়। ধোসার সঙ্গে দেওয়া চাটনিতেই ভয়ানক ওই বিষ মেশানো ছিল বলে অনুমান তাঁর। মিশ্রর দাবি, এর দু’মাস পর অর্থাৎ জুলাইয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের এক আধিকারিকের সঙ্গে সাক্ষাৎ হয় তাঁর। সেই ব্যক্তি তপন মিশ্রকে আর্সেনিক বিষের বিষয়ে সতর্ক করেছিলেন।

ঘটনার প্রায় তিন পর অতিক্রান্ত। বর্তমানে ইসরোয় সিনিয়র উপদেষ্টা তপন মিশ্র জানাচ্ছেন, দীর্ঘদিন ধরে এই ঘটনা গোপন রেখেছিলেন তিনি। কারণ পরে তিনি একাধিক শারীরিক অসুস্থতায় ভুগেছিলেন। শ্বাসকষ্ট থেকে শুরু করে ত্বকে অ্যালার্জি-সহ নানা রোগে জর্জরিত হয়ে পড়েছিলেন তিনি।

মেডিক্যাল রিপোর্টের ছবিও দিয়েছেন

মারাত্মক বিষ যে তাঁর শরীরে ঢুকেছিল, তার প্রমাণ হিসেবে নিজের ফেসবুক ওয়ালে মেডিক্যাল রিপোর্টের ছবিটিও পোস্ট করেন বিজ্ঞানী। জানান, দিল্লির এইমসে (AIIMS) চিকিৎসাধীন ছিলেন।

তপন মিশ্র মনে করেন, ইসরোর অভিজ্ঞ বিজ্ঞানীকে হত্যা করার ছক কষা হয়েছিল। যা একেবারেই হালকাভাবে নেওয়া উচিত নয়। এর পিছনে বড়ো কোনো চক্রান্ত থাকতে পারে। নতুন কিছু আবিষ্কারে বাধা দেওয়ার চেষ্টাও হতে পারে। তাই কেন্দ্রের কাছে বিষয়টির তদন্তের আরজি জানিয়েছেন তিনি।

যদিও গোটা ঘটনা নিয়ে এখনও পর্যন্ত কোনো প্রতিক্রিয়া দেয়নি ইসরো। তবে এতদিন পর তিনি কেন তদন্ত চাইছেন, সে নিয়েও উঠেছে প্রশ্ন।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

দেশে কোভিডে মৃতের সংখ্যা দেড় লক্ষের গণ্ডি ছাড়াল, তবে সংক্রমণের হার আরও কমল

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন