বেঙ্গালুরু: তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থায় কর্মপ্রত্যাশীদের জন্য খুব ভালো সংবাদ নয়। কগনিজ্যান্টের পথে হাঁটতে চলেছে দেশের বাকি তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থাগুলোও। তবে কগনিজ্যান্টের মতো কর্মী ছাঁটাই নয়, অন্য বছরের তুলনায় অনেক কম কর্মী নিয়োগ করবে তারা।

সাধারণত প্রতি বছর প্রায় লক্ষাধিক কর্মী নিয়োগ করে তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থাগুলি। কিন্তু এ বার দেখা যাচ্ছে অন্য বারের থেকে প্রায় চল্লিশ শতাংশ কম কর্মী নিয়োগের পথে হাঁটছে এই সংস্থাগুলি। এর প্রধান কারণ, প্রশিক্ষণরত কর্মীদের যে প্রাথমিক স্তরের কাজ দেওয়া হত, সেগুলি এখন স্বয়ংক্রিয় হয়ে গিয়েছে। উল্লেখ্য, গত বছর এক লক্ষ কর্মী নিয়োগ করেছিল ইনফোসিস, উইপ্রো, এইচসিএল-এর মতো তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থাগুলি। কিন্তু এ বছর কলেজে কলেজে ক্যাম্পাসিং-এর মাধ্যমে মাত্র ষাট হাজারজনকে নিয়োগ করেছে।

ভারতের দ্বিতীয় বৃহত্তম তথ্যপ্রযুক্তি কোম্পানি ইনফোসিসের তথ্য বলছে, গত বছর এপ্রিল থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত পাঁচ হাজার কর্মী নিয়োগ করেছে তারা। তার আগের বছর সংখ্যাটা ছিল সতেরো হাজার। বেঙ্গালুরুর একটি ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজের নিয়োগ সংক্রান্ত এক কর্তা বলেন, “নিয়োগের ক্ষেত্রে এ বছর তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থাগুলি অনেক কঠিন পন্থা নিয়েছিল। সেই জন্য খুব কম ছাত্রছাত্রী নিয়োগপত্র পেয়েছেন।” নিয়োগকর্তা যা-ই বলুন, আসল কারণ হল বেশির ভাগ কাজই এখন স্বয়ংক্রিয় হয়ে যাওয়া। এর ফলেই চাহিদা কমছে কর্মীদের।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন