চেন্নাই : জয়ললিতার রাজনৈতিক জীবনে তিনি ছিলেন তাঁর কাছে অভিশাপের মতো – এমনটাই বললেন রজনীকান্ত। তিনি জানান, অন্তত ১৯৯৬ সালের নির্বাচনের সময় তাঁর জন্যই জয়ললিতা নির্বাচনে হেরে যান।

দক্ষিণ ভারতীয় আর্টিস্ট অ্যাসোসিয়েশন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী জয়ললিতার উদ্দেশে শোকজ্ঞাপন অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। সেই অনুষ্ঠানেই জয়ললিতার স্মৃতিচারণ করেন এই প্রবীণ অভিনেতা। তিনি মন্তব্য করেন, ৯৬-সালের নির্বাচনী প্রচার সভায় তাঁর বক্তৃতার পরই তামিলনাড়ুতে আম্মা তথা এআইএডিএমকের হার নিশ্চিত হয়ে যায়। অভিনেতার বক্তব্যে সেই সময় আম্মা কালিমালিপ্ত হন। কিন্তু তার পরও আম্মা ঘুরে দাঁড়ান। তিনি আরও বলেন, এমন খাড়াখাড়ির সম্পর্ক থাকা সত্ত্বেও তাঁর মেয়ের বিয়েতে জয়ললিতার উপস্থিতি তাঁকে অবাক করেছিল। কারণ তিনি ভেবেই নিয়েছিলেন জয়ললিতা সেখানে আসতে চাইবেন না। তাও তাঁকে নিমন্ত্রণ করেছিলেন। অনুষ্ঠানে এসে আম্মা তাঁকে এ কথাও বলেছিলেন যে, এটা যদি দলের অন্য যে কোনো সদস্যের অনুষ্ঠানও হত তাহলেও তিনি আসতেন।

কাবালি অভিনেতা রজনীকান্তের কথায়, জয়ললিতা মহান হৃদয়ের মানুষ। তিনি হীরের মতো। কোহিনুর হীরের মতো আম্মা আর নেই।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here