খবরঅনলাইন ডেস্ক: নির্বাচনী প্রচারের শুরু থেকেই নীতীশ কুমারের বিরুদ্ধে আক্রমণ শানাচ্ছিলেন চিরাগ পাসোয়ান। কিন্তু রবিবার যে রকম কথা বললেন, সেটা আগে কোনো দিনও বলেননি। সাফ জানিয়ে দিলেন যে তাঁর দল ক্ষমতায় এলে জেলে যেতে হবে বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমারকে (Nitish Kumar)।

রবিবার এক জনসভায় চিরাগ বলেন, ‘‘বিহারে মদ নিষিদ্ধ করার প্রক্রিয়া ব্যর্থ হয়েছে। মদের চোরাই বিক্রি ব্যাপকভাবে চলছে। নীতীশ কুমার তার বিনিময়ে ঘুষ নিচ্ছেন। আমরা ক্ষমতায় এলে মুখ্যমন্ত্রী ও তাঁর অফিসাররা জেলের ভেতরে থাকবেন।’’

এর পর সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে নিজের বক্তব্যের সমর্থনই করেন চিরাগ। তিনি বলেন, “দুর্নীতিগ্রস্ত কোনো নেতাকেই মুক্ত রাখা হবে না। নীতীশ কুমারের কাছে জেলই সঠিক জায়গা।”

ওই জনসভার পর টুইট করে ‘নীতীশ-মুক্ত সরকার’ গড়ার ডাক দিয়ে চিরাগ তাঁর দলের জন্য বিজেপি সমর্থকদেরও কাছে ভোট প্রার্থনা করেন। তিনি টুইটারে লেখেন, ‘‘একটি প্রকল্প, ‘বিহার প্রথম, বিহারবাসী প্রথম’-কে সার্থক করতে আপনাদের কাছ থেকে ভোট প্রার্থনা করছি এলজেপি প্রার্থীদের জন্য। সকলে বিজেপিকে ভোট দিন। আগামী সরকার হবে নীতীশ-মুক্ত সরকার।’’

এ দিকে, রবিবার নীতীশ কুমারের বিরুদ্ধে আক্রমণাত্মক মেজাজে দিয়েছেন আরজেডি নেতা তেজস্বী যাদবকেও (Tejashwi Yadav)। এক জনসভায় হাজির হওয়া জনতার উদ্দেশে তিনি জানান, এই ভিড় প্রমাণ করছে সকলে মুখ্যমন্ত্রীর উপরে কতটা রেগে রয়েছেন। কেবল রাগই করেননি, তাঁরা ঘৃণা করছেন ‘শক্তিহীন, রক্ষণশীল ও সংকীর্ণমনা’ নীতীশ কুমারকে।

উল্লেখ্য, একাধিক সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে, ভোট যত এগিয়ে আসছে, তত জমি ফিরে পাচ্ছেন তেজস্বী। মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে পছন্দের তালিকায় নীতীশকে সমানে টক্কর দিচ্ছেন লালুপুত্র। শেষ দিকে তাঁর একাধিক জনসভায় ভিড় ছিল চোখে পড়ার মতো। অন্যদিকে নীতীশ কুমারকে দেখা গিয়েছে একাধিক জনসভায় মেজাজ হারাতে।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

কোভিড আক্রান্তের সংখ্যা ৯৬ দিন ও মৃতের সংখ্যা ১০৬ দিনে সর্বনিম্ন, সংক্রমণের হার আরও কমল

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন