‘রাজনৈতিক মতপার্থক্য থাকলেও কাশ্মীরের মানুষের জন্য কাজ করে যেতে হবে’, সর্বদলীয় বৈঠকে কাশ্মীরী নেতাদের বললেন মোদী

0

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ‘রাজনৈতিক মতপার্থক্য থাকলেও সব রাজনৈতিক দলকে জম্মু-কাশ্মীরের মানুষের জন্য কাজ করে যেতে হবে।’ কাশ্মীরী নেতাদের নিয়ে সর্বদলীয় বৈঠকে এই কথাই বলেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সেই সঙ্গে জম্মু-কাশ্মীরের রাজ্য-মর্যাদা ফিরিয়ে দেওয়ার ব্যাপারেও প্রধানমন্ত্রী আশ্বাস দিয়েছেন বলে জানিয়েছেন বৈঠকে যোগ দেওয়া নেতারা।

উল্লেখ্য, দীর্ঘ অপেক্ষার পর বৃহস্পতিবার কাশ্মীরী নেতাদের সঙ্গে রাজনৈতিক আলাপ আলোচনা শুরু করে কেন্দ্র। এ দিন দিল্লিতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বাসভবনে এই বৈঠক হয়। বৈঠক যথেষ্ট আন্তরিক আবহে হয়েছে বলে জানিয়েছেন কাশ্মীরের নেতারা।

বৃহস্পতিবারের বৈঠকে জম্মু-কাশ্মীরে বিজেপিবিরোধী শিবির তথা গুপকর জোটের প্রতিনিধিরা ছিলেন। অন্য দিকে, কেন্দ্রের তরফে মোদী ছাড়াও ছিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ এবং কাশ্মীরের উপরাজ্যপাল মনোজ সিনহা।

এ দিন, প্রায় তিন ঘণ্টা ধরে বৈঠক হয়। সন্ধ্যা সাড়ে ছ’টা নাগাদ শেষ হয় বৈঠক। সেখান থেকে বেরিয়ে প্রথমেই সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন আপনা পার্টির নেতা আলতাফ বুখারি। তিনি বলেন,  “ভালো পরিবেশে আলোচনা হয়েছে। ডিমিলিটেশন (বিধানসভা বা লোকসভা কেন্দ্রের নতুন করে সীমা নির্ণয়) প্রক্রিয়া শেষ হলে ভোট প্রক্রিয়া শুরু হবে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।”

Shyamsundar

গুলাম নবী আজাদের পাঁচ দাবি

এ দিনের বৈঠকে ছিলেন প্রবীণ কংগ্রেস নেতা গুলাম নবী আজাদ। বৈঠক শেষে তিনি বলেন, “আমরা কেন্দ্রের কাছে পাঁচটি দাবি রেখেছি, দ্রুত রাজ্যের মর্যাদা ফিরিয়ে দিন, গণতান্ত্রিক পরিবেশ ফেরাতে তাড়াতাড়ি নির্বাচন আয়োজন করুন, কাশ্মীরী পণ্ডিতদের পুনর্বাসনের ব্যবস্থা করুন, রাজনৈতিক সব বন্দিকে মুক্তি দিন, ডোমিসাইল নিয়ম ফিরিয়ে আনুন।”

সূত্রের খবর, এ দিনের বৈঠকে জম্মু-কাশ্মীরের সব রাজনৈতিক দলের প্রতিনিধিদের মতামতই মন দিয়ে শুনেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। কাশ্মীরের মানুষের মন থেকে দিল্লির দূরত্ব ঘোচাতেও তিনি বদ্ধপরিকর, সেই কথাও বলেন মোদী।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন