BJP
প্রতীকী ছবি

পটনা: লোকসভা ভোটের কয়েকমাস আগে বিহারে বড়োসড়ো ধাক্কা খেতে পারে এনডিএ। জোট ছেড়ে বেরিয়ে আসতে পারে উপেন্দ্র খুশওয়াহারের আরএলএসপি। এমনই জল্পনা রাজনৈতিক মহলে।

এনডিএ-এর আরও এক শরিক জেডিইউ। সে দলের নেতা তথা বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমারের সঙ্গে খুশওয়াহার সম্পর্ক আদৌ মধুর নয়। এনডিএ-এর এই দুই শরিকের মধ্যে বিবাদ আরও বেড়েছে রবিবার। আরএলএসপির দুই বিধায়ক জেডিইউতে চলে যাচ্ছেন, এমন খবর আসতেই নীতীশ কুমারের বিরুদ্ধে তোপ দাগেন খুশওয়াহা।

নীতীশকে ‘দল ভাঙানোর খেলায় পারদর্শী’ আখ্যা দিয়েছেন খুশওয়াহা। তবে এটাই নতুন নয়, এর আগেও একাধিকবার নীতীশের বিরুদ্ধে তোপ দেগেছেন খুশওয়াহা। অন্যদিকে বিজেপির ওপরেও তিনি ক্ষুব্ধ। জেডিইউকে এনডিএতে ঢোকানর জন্য কিছুতেই নিজের আসনের জলাঞ্জলি তিনি চান না বলে সাফ জানিয়ে দেন খুশওয়াহা। ২০১৪-এ চারটে আসনে প্রার্থী দিয়েছিল আরএলএসপি। কিন্তু এখন জেডিইউ-এর সঙ্গে বিজেপির সমসংখ্যক আসন বণ্টনের সিদ্ধান্ত হওয়ায় আরএলএসপির ভাগ্য জুটতে পারে মাত্র দুটি আসন। এই রফা যে তিনি মেনে নেবেন না সেটাও সাফ করে দিয়েছেন খুশওয়াহা।

আরও পড়ুন ছটপুজো উপলক্ষে সরকারি কর্মীদের খুশির খবর শোনাল রাজ্য

‘নীতীশের বিরুদ্ধে অভিযোগ করতে’ অমিত শাহের সঙ্গে দেখা করার ইচ্ছেপ্রকাশ করেছেন খুশওয়াহা। যদিও বিজেপি সূত্রের খবর, এখনই খুশওয়াহাকে সময় দিতে পারবেন না অমিত। এরপরেই তাঁর এনডিএ ছেড়ে বেরিয়ে যাওয়ার ব্যাপারে জল্পনা তৈরি হয়েছে।

সূত্রের খবর, ইতিমধ্যে আরজেডির সঙ্গেও কথাবার্তা শুরু করে দিয়েছেন আরএলএসপি নেতা। বিজেপি বিরোধী মহাজোটে আরএলএসপির আগমন এখন সময়ের অপেক্ষা, এমনও দাবি করা হচ্ছে আরজেডি সূত্রে।

সব মিলিয়ে বিহারে ক্রমেই জমে উঠেছে শরিকি নাটক।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here