flood in kerala
বন্যাদুর্গত কেরল। ছবি সৌজন্যে দ্য হিন্দুস্তান টাইমস।

ওয়েবডেস্ক: কেরলকে আগের মত করে তুলতে বিদেশি সাহায্য নিতেই হবে। কেন্দ্রকে এই কথাই বোঝাতে চাইছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নিজে। কিন্তু তাঁর কথাতেও বিশেষ আমল দিচ্ছে না কেন্দ্র।

কেরলকে সাহাজ্যের জন্য সংযুক্ত আরব আমিরশাহি থেকে ৭০০ কোটি টাকার অর্থ সাহায্যের প্রস্তাব এসেছে। এ ছাড়াও আরও অনেক বিদেশি রাষ্ট্রও সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেওয়ার ঘোষণা করেছে। কিন্তু বিদেশ থেকে কোনো সাহায্য নেওয়া হবে না সাফ জানিয়ে দিয়েছে কেন্দ্র। এখানে তাদের হাতিয়ার ২০০৪ সালের ইউপিএ আমলের একটি সিদ্ধান্ত। সে বার সুনামির পরে কেন্দ্র জানিয়েছিল নিতান্ত প্রয়োজন না হলে বিদেশি রাষ্ট্রের থেকে সাহায্য নেওয়া হবে না।

আরও পড়ুন কেরলের মতো পরিস্থিতি কি কখনও কলকাতা-সহ পশ্চিমবঙ্গে হতে পারে?

এ দিকে কেন্দ্রীয় পর্যটন প্রতিমন্ত্রী তথা কেরলের একমাত্র বিজেপি সাংসদ কেজে আলফোন্স মনে করেন বাইরের দেশের সাহায্য না নিলে কেরলকে নতুন করে গড়ে তোলা সম্ভব নয়। সে জন্য “একবারের জন্য ব্যতিক্রমী পথে হাঁটার জন্য” কেন্দ্রকে আবেদনও করেছেন আলফোন্স।

নিউজ ১৮কে দেওয়া একটি সাক্ষাৎকারে আলফোন্স বলেন, “আমি কেন্দ্রের অনেক মন্ত্রীর কাছে আবেদন করেছি। আমার মতে কেরলের বিদেশি সাহায্য দরকার। কিন্তু আমি শুধু আবেদনই করতে পারি, সিদ্ধান্ত তো নিতে পারি না।”

কেরলের জন্য বর্তমানে কেন্দ্রকে অর্থসাহায্যের কথা ঘোষণা করেছে, সেটা “আপাতত ঠিকঠাক” বলে মনে করেন তিনি। এর মধ্যে অবশ্য তিনি বুঝিয়ে দিয়েছেন যে ভবিষ্যতে আরও আর্থিক সাহায্য লাগবে।”

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন