ভোপালে দিগ্বিজয় সিংয়ের বিরুদ্ধে শিবরাজ চৌহানকে প্রার্থী করতে পারে বিজেপি

0

ওয়েবডেস্ক: মধ্যপ্রদেশের ভোপালে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী দিগ্বিজয় সিংকেই এ বারের লোকসভায় প্রার্থী হিসাবে মনোনীত করেছে কংগ্রেস। স্বাভাবিক ভাবেই হেভিওয়েট বিরোধী প্রার্থীর বিরুদ্ধে দলের কোনো হেভিওয়েটকেই তুলে ধরতে চাইছে বিজেপি।

এমনিতে ভোপাল কেন্দ্রটি গত তিন দশক ধরে বিজেপির দখলে। ১৯৮৪ সালের লোকসভা ভোটে শেষবার প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রয়াত শঙ্করদয়াল শর্মা ওই কেন্দ্রের কংগ্রেস প্রার্থী হিসাবে জয়লাভ করেছিলেন। তার পর থেকে প্রতিবারই ওই কেন্দ্রে জয়ী হয়েছেন বিজেপি প্রার্থী। বর্তমানে ওই কেন্দ্রের সাংসদ বিজেপির অলোক সঞ্ঝার।

কংগ্রেসের অন্দর মহলের খবর, দিগ্বিজয় চেয়েছিলেন রাজগড় কেন্দ্র থেকে প্রার্থী হতে। ওই আসনে তিনি ১৯৮৪ এবং ১৯৯১ সালে লোকসভা ভোটে বিজয়ী হয়েছিলেন। কিন্তু তাঁর প্রার্থী হওয়া নিয়ে অনীহা দেখাতে শুরু করেন মধ্যপ্রদেশের বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী তথা কংগ্রেস প্রধান কমল নাথ। শেষমেশ দলের সর্বভারতীয় সভাপতি রাহুল গান্ধীর হস্তক্ষেপে দিগ্বিজয়কে টিকিট দিতে সম্মত হয় দলের প্রভাবশালী অংশ।

এ ব্যাপারে দিগ্বিজয় নিজেই জানিয়েছেন, “আমাকে প্রশ্ন করা হয়েছিল, আমি কোন থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে চাই। উত্তরে আমি কমল নাথকে জানাই, ভোপাল থেকেই প্রার্থী হতে চাই আমি”। মধ্যপ্রদেশের ন’জন প্রার্থীর নাম ঘোষণা করেছে কংগ্রেস। সেই তালিকায় ভোপাল থেকেই ঠাঁই পেয়েছেন দিগ্বিজয়।

[ আরও পড়ুন: ‘কঠিনতম কেন্দ্রে’ কংগ্রেসের প্রার্থী হতে সম্মতি জানালেন দিগ্বিজয় সিং ]

এর পরই বিজেপির তরফেও তোড়জোড় শুরু হয়ে যায়। দলীয় সূত্রে খবর, তেমন হলে ওই কেন্দ্রে প্রার্থী করা হতে পারে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ চৌহানকে।

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন