এনআরসি নিয়ে নিজের সিদ্ধান্ত অমিত শাহকে জানালেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

Mamata and Amit
ফাইল ছবি

নয়াদিল্লি: বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে নাগরিকপঞ্জী বা এনআরসি নিয়ে কথা হয়েছে বলে জানালেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

মমতা বলেন, ” আজ এনআরসি নিয়ে কথা হয়েছে অসমে ১৯ লক্ষ নাগরিকের নাম বাদ গিয়েছে। সেখানে বাঙালি, হিন্দিভাষী, গোর্খাদের নামও তালিকা থেকে বাদ পড়েছে। তাঁদের জন্য স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলেছি। আমি একটা চিঠি দিয়েছি। বলেছি, যাদের নাম বাদ গিয়েছে, তারা কষ্টে আছে। তাঁদের ফের সুযোগ দেওয়ার উচিত”।

একই সঙ্গে সীমান্তবর্তী সমস্যা নিয়েও আলোচনা হয় মমতা-অমিতের। তিনি বলেন, “এর আগে আমি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংয়ের সঙ্গে বৈঠক করেছি। কিন্তু অমিত শাহের সঙ্গে এটাই আমার প্রথম মিটিং। কাল প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেছি। আমাদের এক সঙ্গে কাজ করতে হয়”।

এ দিন বৈঠক শেষে বেরিয়ে মমতা বলেন, “রাজ্যের সঙ্গে একাধিক আন্তর্জাতিক সীমান্ত রয়েছে। সেই বিষয়ে আলোচনা হয়েছে”।

পশ্চিমবঙ্গে এনআরসি চালু করা প্রসঙ্গে মমতা বলেন, “বিহারের নীতীশ কুমারও জানিয়েছেন সে রাজ্যে এনআরসি তাঁরা চালু করবেন না। পশ্চিমবঙ্গেও এনআরসি চালু করার কোনো পরিকল্পনা নেই। আমাদের রাজ্যে এনআরসির কোনো দরকার নেই। তবে এ দিন পশ্চিমবঙ্গে এনআরসি চালু করা নিয়ে কোনো কথা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে হয়নি। ভারতীয়দের নতুন করে পরাধীন হওয়ার প্রয়োজন আছে বলে আমরা মনে করি না”।

এ দিন পশ্চিমবঙ্গের নাম পরিবর্তন এবং কলকাতার প্রাক্তন নগরপাল রাজীব কুমার প্রসঙ্গেও তাঁর কাছে জানতে চান সাংবাদিকরা। নাম পরিবর্তন প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে তাঁর কথা হয়েছে বলে জানিয়ে রাজীব কুমার প্রসঙ্গে প্রশ্নের উত্তর এড়ান মমতা।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.