girl-child

গান্ধীনগর: যতই মেয়েদের জন্য ‘বেটি বাঁচাও বেটি পড়াও’য়ের কথা বলুন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী, তাঁর নিজের রাজ্য গুজরাতে কন্যাসন্তানদের অবস্থা যে কতটা করুণ, সেটা ফের আর এক বার প্রমাণিত হল। বারবার ছেলের জন্য হাপিত্যেশ করে থাকা বাবা খুনই করে দিল তার চার দিনের ছোট্টো মেয়েকে। ছেলে ছেলে করতে করতে এই নিয়ে ছ’নম্বর সন্তান জন্ম দেয় তার স্ত্রী। ছ’টিই মেয়ে।

৩০ বছরের বিষ্ণু রাঠৌর নামক ওই ব্যক্তির শ্বশুরের অভিযোগের ভিত্তিতে তাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। পুলিশের এক আধিকারিক বলেন, “দশ বছরের বিবাহিত জীবনে বিষ্ণু এবং তার স্ত্রী বিমলার এটা ছ’নম্বর সন্তান। সবাই মেয়ে।

বিষ্ণুর শ্বশুর জসওয়ান্ত জেৎসিংহের অভিযোগ, রবিবার নিজের মেয়েকে প্রথম বার দেখার জন্য শ্বশুরবাড়িতে গিয়েছিল বিষ্ণু। সন্তান প্রসবের জন্য সেখানেই ছিল বিষ্ণুর স্ত্রী। বিমলার ঘুমোনোর সুযোগ নিয়ে, নিজের মেয়েকে ছুরি দিয়ে কোপাতে শুরু করে বিষ্ণু। সে পালাতে চেষ্টা করলেও শ্বশুরবাড়ির লোকজন তাকে ধরে ফেলে এবং পুলিশের হাতে দিয়ে দেয়।

গুজরাতে মেয়েদের অবস্থা খুবই খারাপ। রাজ্যে কন্যাভ্রূণ হত্যাও একটা বড়ো সমস্যা। প্রত্যেক এক হাজার পুরুষে রাজ্যে মেয়েদের সংখ্যা ৯১৯। তবে ২০১৪ থেকে ২০১৬-এর মধ্যে করা নীতি আয়োগের একটি সমীক্ষা রিপোর্ট জানাচ্ছে, রাজ্যে প্রতি এক হাজার পুরুষ নবজাতকের তুলনায় কন্যা নবজাতকের সংখ্যা ছিল মাত্র ৮৪৮।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here