একার হাতেই ৩০০ একর জায়গায় জঙ্গল তৈরি করে ফেললেন তিনি!

ওয়েবডেস্ক: আমাজন যখন জ্বলছে, যখন মানুষই পৃথিবীকে ধ্বংস করার জন্য কার্যত উঠে পড়ে লেগেছে, তখন সেই মানুষই আবার নতুন করে আশা দেখাচ্ছে এই পৃথিবীকে বাসযোগ্য করে তোলার জন্য।

চিনে নিন মৈরাংথেম লোইয়াকে। ৪৫ বছর বয়সি এই মণিপুরি ব্যক্তি তিনশো একর জমিতে গড়ে তুলেছেন একটি ঘন জঙ্গল। তাঁর ১৭ বছরের চেষ্টায় এই জঙ্গল এখন গাছে ভরতি। সংবাদসংস্থা এএনআইকে তিনি জানান, ২৫০ রকমের গাছ এবং ২৫ রকমের বাঁশ তাঁর এই জঙ্গলে রয়েছে।

ইম্ফলে লঙ্গল পাহাড়শ্রেণিতে এই জঙ্গল তৈরি করেছেন তিনি। নাম দিয়েছেন পুনশিলোক জঙ্গল। তাঁর বক্তব্য, সাপ, পাখি এবং অন্যান্য বন্যজন্তু তাঁর তৈরি এই জঙ্গলে বসবাস করে।

লোইয়ার এই কাজকে কুর্নিশ জানিয়েছেন মণিপুরের মুখ্য বন সংরক্ষক কেরেইলহৌভি অঙ্গামি। লোইয়ার পথ অনুসরণ করে মণিপুরের আরও বাসিন্দাও যাতে বন সংরক্ষণের ব্যাপারে সচেতন হয়ে ওঠেন, সে ব্যাপারে আবেদন করেছেন অঙ্গামি।

আরও পড়ুন একের পর এক বেফাঁস মন্তব্য, বিজেপি সাংসদের মুখে লাগাম টেনে চূড়ান্ত ব্যবস্থার হুঁশিয়ারি

২০০২ থেকে এই জঙ্গল তৈরিতে হাত লাগিয়েছেন লোইয়া। আগে এখানে একটা জঙ্গল ছিল। কিন্তু ২০০২-তে লোইয়া দেখেন, ধান চাষের জন্য কৃষকরা গোটা জঙ্গলটাকেই পুড়িয়ে শেষ করে দিয়েছেন। লোইয়া তখন মেডিক্যাল রিপ্রেজেন্টেটিভের কাজ করেন। সেই কাজ ছেড়ে দিয়ে এই জঙ্গল পুনরায় তৈরি করার পেছনেই লেগে পড়লেন তিনি। তাঁর ঐকান্তিক চেষ্টায় মণিপুরের অক্সিজেন কিছুটা হলেও তো বাড়ল!

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.