M J Akbar

নয়াদিল্লি: এক-দু’জন নন, হাফডজন মহিলা যৌন হেনস্থার অভিযোগ তুলেছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী তথা প্রাক্তন পত্রিকা সম্পাদক এম জে আকবরের বিরুদ্ধে। দেশজোড়া হইচইয়ের মাঝেই কংগ্রেসের তরফে তোলা হয়েছে তাঁর পদত্যাদের দাবি। এরই মধ্যে বিশ্বস্ত সূত্রে খবর, নাইজেরিয়া সফররত আকবরকে দেশে ফেরার নির্দেশ পাঠানো হয়েছে।

জাতীয় বেসরকারি সংবাদ মাধ্যম এনডিটিভির একটি প্রতিবদেন উল্লেখ করা হয়েছে, সরকারি ভাবে সফরসূচি কাটছাঁট করে নাইজেরিয়া থেকে আকবরকে দেশে ফেরার নির্দেশ পাঠানো হয়েছে। মহাত্মা গান্ধীকে নিয়ে আয়োজিত একটি অনুষ্ঠানে নাইজেরিয়ার লাগোসে আছেন কেন্দ্রীয় বিদেশমন্ত্রকের প্রতিমন্ত্রী আকবর।

মন্ত্রীর বিরুদ্ধে অভিযোগ ওঠার পরই গত মঙ্গলবার বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের কাছে আকবরের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ সম্পর্কে প্রতিক্রিয়া জানতে চাওয়া হয়। কিন্তু তিনি এমন একটি ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে নীরবতা অবলম্বন করেন। বুধবার ফের কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারামণের কাছেও একই বিষয়ে প্রতিক্রিয়া চাইলে তিনি বিষয়টিকে কৌশলে এড়িয়ে যায়। তবে কেন্দ্রের বিরোধী দল কংগ্রেসের তরফে এ ব্যাপারে কড়া পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। আকবরের ইস্তফা দাবি করে নেওয়া হয়েছে একাধিক কর্মসূচি। সব মিলিয়ে সরকারি দলের টনক নড়ার ফলশ্রুতিতেই হয়তো আকবরকে প্রশ্ন করা হতে পারে বলে অনুমান করা হচ্ছে।

যদিও ওই সূত্রের দাবি, আকবরের বিরুদ্ধে বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়ায় অভিযোগ উঠলেও আইনানুগ কোনো পদক্ষেপ এখনও পর্যন্ত গৃহীত হয়নি। তাঁর বিরুদ্ধে কোনো এফআরআই দায়েরও হয়নি। তা সত্ত্বেও নৈতিক দিয়ে এমন একটি স্পর্শকাতর বিষয়ে বিবেচনা করা যেতে পারে।

তবে বিজেপির তরফে এক মাত্র কেন্দ্রীয় নারী ও শিশু উন্নয়নমন্ত্রী মানেকা গান্ধী এ ব্যাপারে পুঙ্খানুপুঙ্খ তদন্তের দাবি তুলেছেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন