Alok Verma

নয়াদিল্লি: সিবিআইয়ের নির্বাসিত অধিকর্তা অলোক বর্মার বিরুদ্ধে ওঠা ঘুষ নেওয়ার অভিযোগে তাঁকে ক্লিনচিট দিল না সুপ্রিম কোর্ট। বৃহস্পতিবার সুপ্রিম কোর্টে এই মামলার শুনানি হয়। সেন্ট্রাল ভিজিল্যান্স কমিশন (সিভিসি)-র দেওয়া তদন্ত রিপোর্টে আশ্বস্ত না হয়ে সর্বোচ্চ আদালত এ ব্যাপারে আগামী সোমবারের মধ্যে বর্মাকে মুখবন্ধ খামে জবাবিপত্র দেওয়ার নির্দেশ দেয়।

বর্মার অধ:স্তন সিবিআইয়ের সহ-অধিকর্তা রাকেশ আস্থানা তাঁর বিরুদ্ধে দুর্নীতি এবং ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ তোলেন। সেই অভিযোগ হাতে পাওয়ার পর সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ এ ব্যাপারে তদন্ত রিপোর্ট জমা দেয় সিভিসি। কিন্তু নির্ধারিত সময় পার হয়ে যাওয়ার পর গত সোমবার সেই রিপোর্ট জমা পড়ায় সুপ্রিম কোর্টের তরফে ভর্ৎসনা করা হয় সিভিসি-কে। পাশাপাশি সু্প্রিম কোর্ট জানায়, ওই রিপোর্টে নির্দিষ্ট করে কোনো সমাধান সূ্ত্র খুঁজে বের করা হয়নি। ফলে ওই মিশ্র রিপোর্টের উপর ভিত্তি করে কোনো সিদ্ধান্তে পৌঁছানো সম্ভব নয়।

একই সঙ্গে সুপ্রিম কোর্ট আক্ষেপ প্রকাশ করে বলে, সিবিআইয়ের বিশ্বাসযোগ্যতা অক্ষুন্ন রাখতে সিভিসির রিপোর্ট এবং তাদের জবানবন্দি গোপন রাখা বঞ্ছনীয়। তবে বর্মার কাছে জবাবিপত্র চাওয়ার বিষয়টিও বেশ গুরুত্বপূর্ণ। সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈই বর্মাকে বলে, এই তদন্ত রিপোর্টে কিছু অভিযোগে সম্মতিসূচক, কিছু অভিযোগ সম্মতিসূচক নয় এবং কিছু অভিযো খুব অস্পষ্ট।”

সব মিলিয়ে বর্মার জবাব পাওয়ার পরই সুপ্রিম কোর্ট এই মামলার রায় দিতে পারে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here