low pressure in bay of bengal
ওই আসে বৃষ্টি। নিজস্ব চিত্র

নয়াদিল্লি: উত্তর এবং পশ্চিম ভারতে বর্ষা দুর্বল হয়ে যাওয়ার লক্ষণ দেখালেও সোমবারের আগে বর্ষার বিদায় যাত্রা শুরু হবে না বলে জানাল দিল্লির মৌসম ভবন। একটি পশ্চিমী ঝঞ্ঝার ফলে শুক্রবার থেকে উত্তর ভারতে আবার এক দফা জোর বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে যার ফলে বর্ষার বিদায় নেওয়া শুরু হতে দেরি হয়ে যাচ্ছে।

আবহাওয়া দফতরের এক অধিকর্তা চরণ সিংহ বলেন, “পশ্চিম এবং মধ্য ভারতে বৃষ্টি কমে গিয়েছে, কিন্তু একটা পশ্চিমী ঝঞ্ঝার প্রভাবে উত্তর ভারতে আবার বৃষ্টি শুরু হয়েছে। আগামী অন্তত তিন দিন এর প্রভাবে জোর বৃষ্টি হবে উত্তর ভারতে। তার পরেই বর্ষার বিদায় নেওয়ার পরিস্থিতি তৈরি হবে।”

সাধারণত ১ সেপ্টেম্বর রাজস্থানের পশ্চিমাংশ থেকে বর্ষা বিদায় নিতে শুরু করে। তারপর ১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে দিল্লি-সহ উত্তর ভারতের কিছু অংশ থেকে বিদায় নেওয়ার কথা তার। কলকাতা-সহ পশ্চিমবঙ্গে বর্ষার বিদায় নেওয়ার দিন ৮ অক্টোবর। তবে গত বেশ কয়েক বছর ধরেই দেখা যাচ্ছে বিদায় নিতে বেশ কিছুটা দেরি করে ফেলছে বর্ষা।

আরও পড়ুন বৃষ্টির ঘাটতি বাড়ছে দক্ষিণবঙ্গে, ব্যতিক্রম কলকাতা-বাঁকুড়া

বর্ষার বিদায় ঘোষণা করার জন্য বেশ কিছু পরিমাপ দেখে আবহাওয়া দফতর। চরণ সিংহ বলেন, “প্রথমত দেখতে হবে বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ একদম কমে গিয়েছে কি না, তার পর দেখতে হবে গত পাঁচ দিন ধরে বৃষ্টি হয়েছে কি না। যদি জলীয় বাষ্পের পরিমাণ কমে যায় এবং পাঁচ দিন ধরে কোনো বৃষ্টি না হয়, তা হলেই আমরা বর্ষার বিদায় ঘোষণা করে দিই।”

এই মুহূর্তে গোটা দেশে বর্ষার সার্বিক ঘাটতি এখন ৮ শতাংশ। ৩৬টা অঞ্চলের মধ্যে স্বাভাবিক বৃষ্টি হয়েছে ২৬টা অঞ্চলে। ৯টা অঞ্চলে বৃষ্টির পরিমাণ কুড়ি শতাংশের কম। একমাত্র কেরলে বৃষ্টির পরিমাণ এ বার কুড়ি শতাংশের বেশি।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন