বেশিরভাগ রোগী হাসপাতালে বিশ্বাস করেন না: সমীক্ষা রিপোর্ট

0
প্রতীকী ছবি

ওয়েবডেস্ক: দেশের কমপক্ষে ৬০ শতাংশ রোগী মনে করেন, হাসপাতালগুলি তাদের সেরা পরিষেবা দিচ্ছে না।  তিন বছর আগে, ঠিক একই বিষয়ের উপর করা সমীক্ষায় এই শতকরা হারটি ছিল ৩৭ শতাংশ। ২০১৯ সালে সর্বশেষতম আর্নস্ট অ্যান্ড ইয়ং (ইওয়াই) – ফেডারেশন অব ইন্ডিয়ান চেম্বারস অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (ফিকি)-র ‘ইন্ডিয়ান হেলথ কেয়ার রি-ইঞ্জিনিয়ারিং ২.০’ শীর্ষক সমীক্ষা রিপোর্টে এই পরিসংখ্যান উঠে এসেছে।

ইওয়াই ভারত জুড়ে এক হাজার রোগী নিয়ে একটি অনলাইন সমীক্ষা চালিয়েছিল। পর্যবেক্ষণে আরও বলা হয়েছে যে, রোগীর অভিজ্ঞতার মূল ফাঁকগুলি যা বিশ্বাস ঘাটতিতে অবদান রেখেছিল তা হল – রোগী এবং রোগীর পরিজনের প্রতি হাসপাতালের দুর্বল সংবেদনশীলতা এবং ৬৩% রোগীর ক্ষেত্রে অপেক্ষার দীর্ঘ সময় নিয়ে, যেখানে ৫৯% রোগী কোনো উদ্বেগজনক মতামত দেননি।

বিশ্বের মধ্যে ভারত সব থেকে কম খরচে স্বাস্থ্য পরিষেবা সরবরাহ করে বলে দাবি করা হয়। তবুও সারা দেশের বেশিরভাগ মানুষের জন্য স্বাস্থ্য পরিষেবায় আরও বেশি করে মনোনিবেশ করার পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

প্রতিবেদনে বিশেষজ্ঞরা সুপারিশ করেন, প্রত্যন্ত অঞ্চলে উদ্ভাবনী প্রাথমিক স্বাস্থ্য পরিষেবা ব্যবস্থাকে শক্তিশালী করার জন্য ব্যক্তিগত আগ্রহীদের অংশগ্রহণে উৎসাহিত করা, দেশীয়ভাবে তৈরি স্বল্প ব্যয়ের পণ্যগুলির প্রচলন বাড়ানো, ইত্যাদির উপর জোর দিতে হবে।

[ আরও পড়ুন: বাড়তি খরচ কমাতে অন্তর্বাস কেনায় অনীহা এ দেশের পুরুষদের! ]

এই রিপোর্টের পরিপ্রেক্ষিতেই অ্যাপোলো হসপিটালসের যুগ্ম ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং ফিকির সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট সংগীতা রেড্ডি বলেছেন, “এটা খুব আশ্চর্যের বিষয় যে পুনর্বিবেচনা ও পুনঃনির্মাণ প্রক্রিয়াতে সকলকে সহায়তা করার জন্য এবং প্রয়োজনীয় সিদ্ধান্ত গ্রহণের পথে এগিয়ে যাওয়ার জন্য একটি খুব সময়োচিত এবং প্রাসঙ্গিক প্রতিবেদন একত্র করা হয়েছে”।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here