হিংসা রুখতে দেশবাসীকে বিশেষ বার্তা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর

0
ফাইল ছবি

নয়াদিল্লি: সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ)-এর বিরুদ্ধে বিক্ষোভ এখন কার্যত গোটা দেশে ছড়িয়ে পড়েছে। এই পরিস্থিতিতে অবশেষে নীরবতা ভাঙলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

হিংসাত্মক প্রতিবাদ থেকে সরে এসে, সকলকে শান্তি ও সৌভ্রাতৃত্ব বজায় রাখতে আর্জি জানালেন তিনি। সেই সঙ্গে এই আশ্বাসও দিলেন যে ধর্ম নির্বিশেষে ভারতের কোনো নাগরিকের ওপরে কোনো অবিচার করা হবে না।  

সোমবার টুইটারে মোদী লেখেন,‘‘সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে হিংসাত্মক প্রতিবাদ দুর্ভাগ্যজনক। আলাপ-আলোচনা এবং মতপার্থক্য গণতন্ত্রের অঙ্গ। সরকারি সম্পত্তি নষ্ট এবং জনজীবন বিপর্যস্ত করে তোলা কখনওই আমাদের আদর্শ নয়।’’

এর পর মোদী বলেন, ‘‘দেশবাসীকে নিশ্চিত করছি, সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের মাধ্যমে দেশের কোনো নাগরিক এবং কোনও ধর্মের প্রতি অবিচার করা হবে না। এ নিয়ে কোনো ভারতীয়র চিন্তার কারণ নেই। পড়শি দেশে নিপীড়নের শিকার হয়েছেন যাঁরা, ভারত ছাড়া অন্য কোথাও যাওয়ার উপায় নেই যাঁদের, এই আইন শুধু তাঁদের জন্যই।’’

আরও পড়ুন বিজেপির ফাঁদে পা দেবেন না: মুখ্যমন্ত্রী

উল্লেখ্য, অসম, বাংলার পর রবিবার বিক্ষোভ চরম আকার ধারণ করে রাজধানী দিল্লিতে। সেখানে রাতের অন্ধকারে জামিয়া মিলিয়া ইসলামিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে ঢুকে পড়ুয়াদের পেটানোর অভিযোগ উঠেছে দিল্লি পুলিশের বিরুদ্ধে।

সোমবার সকাল থেকে দেশের বিভিন্ন কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ে এই আইনের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ-প্রতিবাদ শুরু হয়েছে। এখন দেখার, প্রধানমন্ত্রীর এই আবেদনের পর অশান্তি বন্ধ হয় কি না।

------------------------------------------------
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.