খবর অনলাইন ডেস্ক: অনলাইন নিউজ পোর্টাল, লাইভ স্ট্রিমিং ফিল্ম অ্যাপ এবং কনটেন্টে কড়া নজর রাখবে কেন্দ্রীয় সরকার। কিন্তু বুধবার এই মর্মে জারি করা নির্দেশিকায় অনলাইন নিউজ পোর্টাল এবং বর্তমান সময়ের ঘটনা সম্বলিত বিষয়গুলিকে ‘চলচ্চিত্রের’ বিভাগে রাখার কারণ বোঝা যাচ্ছে না।

জানানো হয়েছে, এ বার থেকে অনলাইনে পরিবেশিত সমস্ত কনটেন্টের উপর কেন্দ্রীয় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রক নজরদারি চালাবে। তবে তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রকের অ্যালোকেশন অব বিজনেস রুলস ১৯৬১-র অধীনে ‘নিউজ’ এবং ‘কারেন্ট অ্যাফেয়ার্স’-কে ২২-এর পরে অন্তর্ভুক্ত করার অর্থ হয়ে দাঁড়িয়েছে এগুলিকে ‘ফিল্ম’-এর পর্যায়ে ফেলে দেওয়া।

Loading videos...

মন্ত্রকের অ্যালোকেশন অব বিজনেস রুলস ১৯৬১-এ সম্প্রচার নীতি এবং প্রশাসন সম্পর্কিত ৯টি গুরুত্বপূর্ণ শ্রেণিবিভাগ রয়েছে। যেগুলি হল কেবল টেলিভিশন পলিসি, রেডিও, দূরদর্শন, ফিল্মস, বিজ্ঞাপন এবং ভিস্যুয়াল পাবলিসিটি প্রেস, প্রেস, প্রকাশনা এবং গবেষণা ও রেফারেন্স।

আশ্চর্যজনক ভাবে অনলাইন নিউজ পোর্টাল এবং বর্তমান সময়ের ঘটনা সম্বলিত বিষয়গুলিকে ২২-এর পরে যুক্ত করায় ‘চলচ্চিত্রের’ (Films) উপ-বিভাগে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। অর্থাৎ, কার্যত এগুলিকে প্রেস (Press)-এর অন্তর্গত করা হয়নি।

কারণ মন্ত্রকের নিয়মাবলি অনুযায়ী, প্রেস-এর বিষয়গুলি শুরু হচ্ছে ২৪ থেকে। রুলসটি বিস্তারিত দেখুন এখানে ক্লিক করে

[রাষ্ট্রপতির স্বাক্ষরিত সেই নির্দেশিকা]

কেন্দ্রের নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, ওটিটি প্ল্যাটফর্মে প্রচারিত ফিল্ম বা ওয়েব কনটেন্টের প্রচারের আগে তথ্য-সম্প্রচার মন্ত্রকের অনুমোদন নিতে হবে। আবার এই একই নিয়ম কার্যকর হবে অনলাইনে প্রকাশিত সমস্ত অডিয়ো-ভিস্যুয়াল বা কারেন্ট অ্যাফেয়ার্স অনুষ্ঠানের জন্যও। বিস্তারিত পড়ুন এখানে: অনলাইন নিউজ পোর্টাল, ওটিটি প্ল্যাটফর্মে এ বার সরকারি নজরদারি, জারি হল নির্দেশিকা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.