নয়াদিল্লি: কৃষি আয়ে কর বসানোর কোনো পরিকল্পনা কেন্দ্রের নেই, বুধবার স্পষ্ট ভাবে জানিয়ে দিলেন অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি। বুধবার একটি বিবৃতির মাধ্যমে এমন বলেন জেটলি। কৃষি আয়ে কর বসানোর জন্য জোরালো দাবি উঠেছে ‘থিঙ্ক ট্যাঙ্ক’ নীতি আয়োগের মধ্যে থেকেই।

জেটলি বলেন, “কৃষি আয়ে কর সংক্রান্ত যে রিপোর্ট নীতি আয়োগ প্রকাশ করেছে সেটা আমি পড়েছি। কোনো রকম বিভ্রান্তি যাতে তৈরি না হয়, তাই আমি স্পষ্ট ভাবে বলে দিতে চাই যে কৃষি আয়ে কর বসানোর কোনো পরিকল্পনা কেন্দ্রের নেই।”

প্রসঙ্গত, কৃষি আয়ে কর না বসালে অনেকেই এর সুযোগ নিয়ে কর ফাঁকি দিতে পারে, এই আশঙ্কা প্রকাশ করে নীতি আয়োগের সদস্য বিবেক দেবরায় মঙ্গলবার বলেছিলেন, “আয়করদাতার ভিত চওড়া করতে হলে যে সব ছাড় রয়েছে, সেগুলি তুলে দিতে হবে। নির্দিষ্ট ঊর্ধ্বসীমার উপরে কৃষি থেকে আয়ের উপরেও কর বসানো উচিত।”

কৃষি আয়ে কর বসানো রাজনৈতিক ভাবে অত্যন্ত স্পর্শকাতর একটি বিষয়, এবং এই এক ব্যাপারে কংগ্রেস এবং বিজেপি দু’দলই এক মেরুতে।

উল্লেখ্য, কী ভাবে কৃষি আয়কে করভুক্ত করা যায় সে উপায়ও বলে দিয়েছিলেন বিবেকবাবু। তাঁর কথায়, “প্রতি বছর কৃষি থেকে আয় এক হয় না, তারতম্য ঘটে। তাই এক বছরের কৃষি আয় না ধরে গড়ে তিন বছর বা পাঁচ বছরেরও মোট আয় ধরা যেতে পারে।” সেই সঙ্গে বিবেকবাবু আরও বলেন যে শহুরে এবং গ্রামীণ এলাকার জন্য আয়কর ছাড়ের ঊর্ধ্বসীমা আলাদা হওয়া উচিত নয়।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here