Alok Verma

নয়াদিল্লি: মঙ্গলবারই রায় ঘোষণার কথা ছিল সিবিআইয়ের নির্বাসিত অধিকর্তা অলোক বর্মার নির্বাসন সংক্রান্ত মামলার। কিন্তু এ দিন সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি অলোক বর্মার নেতৃত্বাধীন বেঞ্চ পুরো ঘটনায় যারপরনাই ক্ষুব্ধ হয়ে মামলা শুনানি পিছিয়ে দিল ২৯ নভেম্বর।

এ দিন শুনানির শুরুতেই সিবিআইয়ের বাদি এবং বিবাদি- দুইপক্ষের উপরই যথেষ্ট ক্ষুব্দ হন প্রধানবিচারপতি। যার কারণ অবশ্য গত সপ্তাহে সুপ্রিম কোর্টে জমা দেওয়া সিভিসি রিপোর্ট। বর্মার বিরুদ্ধে ওঠা যাবতীয় অভিযোগের তদন্তে নেমেছিল সেন্ট্রাল ভিজিল্যান্স কমিশন। সেই রিপোর্ট হাতে পাওয়ার পরও সন্তুষ্ট হতে পারেনি সর্বোচ্চ আদালত। মন্তব্যে বলা হয়, ওই রিপোর্টে মিশ্র দৃষ্টিভঙ্গির প্রতিফলন। এর পর ওই রিপোর্ট সংবাদ মাধ্যমের কাছে ফাঁস হয়ে যাওয়ার অভিযোগ ওঠে। যদিও রিপোর্টটিকে দায়িত্ব নিয়ে গোপন রাখার নির্দেশ দিয়েছিল সুপ্রিম কোর্ট। তা সত্ত্বেও একটি ওয়েব পোর্টালে ওই রিপোর্ট ফাঁস হয়ে যাওয়ার অভিযোগ ওঠে।

আরও পড়ুন: কেন্দ্র রিজার্ভ ব্যাঙ্কের ঘাড়ে চাপতেই পতনের মুখে শেয়ার বাজার!

সব মিলিয়ে মঙ্গলবার প্রধান বিচারপতির বেঞ্চে এই মামলার শুনানি শুরু হলেও তা মাঝপথেই বন্ধ করে দেওয়া হয়। এ প্রসঙ্গে সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচরপতি রঞ্জন গগৈ বলেন, “আমরা মনে করি না, আপনারা কেউই শুনানির যোগ্য।”

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here