Connect with us

দেশ

নিজামুদ্দিনের জামাতই শুধু নয়, ভারতে করোনারোগী বাড়িয়েছে আরও দু’টো ঘটনা

Published

on

খবর অনলাইনডেস্ক: চম্বলে করোনা, সচিবালয়ে করোনা। শুধু নিজামুদ্দিনের জমায়েতই নয়, ভারতে করোনারোগী (Coronavirus) বাড়ানোর জন্য দায়ী আরও দু’টো ঘটনা। দু’টোই মধ্যপ্রদেশের (Madhya Pradesh)। আর তার মধ্যে অন্তত একটিতে প্রশাসনের গাফিলতি স্পষ্ট।

নিজামুদ্দিনের ঘটনা নিয়ে গোটা দেশ যতটা ক্ষুব্ধ, তার সিকি ভাগ গুরুত্বও মধ্যপ্রদেশের দু’টো ঘটনাকে দেওয়া হয়নি। অথচ এই দু’টিই বেশ গুরুত্বপূর্ণ।

চম্বল (Chambal) অঞ্চলের মোরেনা (Morena) শহরের এক ব্যক্তির মা মার্চে মারা যান। ওই ব্যক্তি থাকতেন দুবাইয়ে (Dubai)। ১৭ মার্চ দুবাই থেকে ফিরে ২০ মার্চ তাঁর মায়ের শ্রাদ্ধবাসরের আয়োজন করেন। ওই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ১৫০০ মানুষ। এই অনুষ্ঠান যখন হচ্ছে, ওই ব্যক্তির শরীর কিন্তু ধীরে ধীরে খারাপ হতে শুরু করেছে।

আরও পড়ুন করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ফের সাফল্য কেরলের

কিছু দিন পর জ্বর-কাশি-শ্বাসকষ্ট নিয়ে স্থানীয় এক হাসপাতালে যান। চিকিৎসকরা করোনার উপসর্গ দেখে তাঁকে যাবতীয় প্রশ্ন করতে শুরু করেন। ওই ব্যক্তি সব প্রশ্নের উত্তরই দেন। কিন্তু আসল কথাটাই তখন তিনি বলেননি। যে তিনি দুবাই থেকে এসেছেন।

২ এপ্রিল গ্বালিয়রের (Gwalior) সরকারি হাসপাতালে সস্ত্রীক ওই ব্যক্তিকে স্থানান্তরিত করা হয়। এর পর তাঁদের করোনাভাইরাসের পরীক্ষা করার পর দেখা যায় রিপোর্ট পজিটিভ। সঙ্গে সঙ্গে গোটা মোরেনা জেলা প্রসাশনের মধ্যে কার্যত থরহরিকম্প শুরু হয়ে যায়। ওই ব্যক্তি যে দেড় হাজার জনকে নিয়ে অনুষ্ঠান করেছিলেন সেটাও স্বীকার করে নেন।

মোরেনা জেলার জনসংখ্যা ৩ লক্ষ। এর মধ্যে প্রায় ৭৫ হাজার মানুষের থার্মাল স্ক্রিনিং হয়। আরও ৩২,২৬৩ জনকে হোম কোয়ারান্টাইনে পাঠানো হয়।

৮ এপ্রিল পর্যন্ত মোরেনার ১৩ জনের করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। আরও ২৪ জনের করোনা উপসর্গ থাকায় আইসোলেশনে ভরতি করা হয়েছে। তাঁদের রিপোর্ট আসা বাকি রয়েছে। ফলে আক্রান্তের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে।

অন্য ঘটনাটি ভূপালের (Bhopal)। কোনো ধর্মীয় বা সামাজিক জমায়েতের জন্য এই ভাইরাস অবশ্য ছড়ায়নি। এর জন্য দায়ী এক আমলার চূড়ান্ত গাফিলতি। করোনাভাইরাস রোধে যে দফতরের দায়িত্ব সব থেকে বেশি, সেই স্বাস্থ্য দফতরের একাধিক ব্যক্তি কোভিড ১৯-এ আক্রান্ত হয়ে গিয়েছেন, যাঁর সূত্র একজনই।

আরও পড়ুন ভিডিও কনফারেন্সে প্রধানমন্ত্রীকে একাধিক পরামর্শ দিলেন অধীররঞ্জন চৌধুরী

সপ্তাহের শুরুতেই কোভিড ১৯-এ আক্রান্ত হন মধ্যপ্রদেশের স্বাস্থ্যসচিব পল্লবী জৈন গোভিল। গোভিলের ছেলে আমেরিকা থেকে ফিরেছিলেন, এই খবরটি কাউকে না জানিয়েই করোনা মোকাবিলার জন্য যাবতীয় বৈঠক করে চলেন গোভিল, অভিযোগ এমনই।

গত রবিবার পর্যন্ত দফতরে হাজিরা দিয়েছিলেন গোভিল। এর পরেই তাঁর রিপোর্ট পজিটিভ আসে। গোভিল বাড়িতেই আইসোলেশনে চলে যান এবং ভিডিও কনফারেন্সিংয়ের মাধ্যমে দফতরের যাবতীয় কাজকর্মও সারতে থাকেন। তাঁর এই ভূমিকা মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিংহ চৌহানের প্রশংসাও কুড়িয়ে নেয়।

কিন্তু তত দিনে যা ক্ষতি হওয়ার হয়ে গিয়েছে। এর পর স্বাস্থ্য দফতরের আরও দুই আধিকারিকেরও করোনা ধরা পড়ে। আর অসংখ্য ব্যক্তির এই উপসর্গ দেখা যায়। সবাইকে আইসোলেশনে ভরতি করা হয়েছে।

তবে হাসপাতালে ভরতি হতেও নারাজ ছিলেন এই আধিকারিকরা, এমন অভিযোগ রয়েছে। প্রথমে করোনার উপসর্গ থাকা সত্ত্বেও দফতরে এসেছিলেন সবাই। তার পর করোনা পজিটিভ গোভিলের সংস্পর্শে আসায় তাঁদের যে হোম কোয়ারান্টাইনের নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল, সেটাও পালন করেননি।

আরও পড়ুন করোনাভাইরাসের শৃঙ্খল ভেঙে দিয়ে সাফল্য অর্জন করল জবলপুর

শেষমেশ গত ৭ এপ্রিল, রাজ্যের মুখ্যসচিবের হস্তক্ষেপে এই আধিকারিকদের হাসপাতালে ভরতি করা হয়। এই আধিকারিকরা গত দু’ সপ্তাহে কাদের সংস্পর্শে এসেছিলেন, সেই তালিকা তৈরি করতে এখন হিমশিম খেতে হচ্ছে প্রশাসনকে।

মধ্যপ্রদেশে প্রধানত দু’টো হটস্পট হয়েছে করোনাভাইরাসের। একটি ইনদওর, যেখানে রোগীর সংখ্যা ১৭৩, অন্যটি ভূপাল, যেখানে মোট রোগী ৯২। ভূপালের রোগীর সংখ্যা গত দু’তিন দিনে মারাত্মক বেড়েছে। সব মিলিয়ে মধ্যপ্রদেশে এখন রোগীর সংখ্যা ৩১৩।

দেশ

সোমবার থেকে স্কুল খোলা বাধ্যতামূলক নয়, দেখে নিন কোন রাজ্য কী সিদ্ধান্ত নিল?

সরকারি নির্দেশ অনুযায়ী এ ব্যাপারে নিজেদের মতো করেই সিদ্ধান্ত নিয়েছে এবং নিচ্ছে রাজ্য সরকারগুলি।

Published

on

খবর অনলাইন ডেস্ক: করোনা মহামারির আবহেই আগামী সোমবার থেকে নবম-দ্বাদশ শ্রেণিরা পড়ুয়াদের জন্য স্বেচ্ছায় আংশিক ভাবে স্কুল খোলার অনুমতি দিয়েছে কেন্দ্র। তবে ২১ সেপ্টেম্বর থেকে পুনরায় স্কুলগুলি চালু করা মোটেই বাধ্যতামূলক নয়।

আনলক-৪ পর্যায়ে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ৫০ শতাংশ শিক্ষক ও অশিক্ষক কর্মীদের নিয়ে নবম-দ্বাদশ শ্রেণির পড়ুয়াদের স্কুলে স্বেচ্ছা উপস্থিতির অনুমতি দিয়েছে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক। তবে ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নির্ভর করছে রাজ্য সরকাগুলির উপর।

সরকারি নির্দেশ অনুযায়ী এ ব্যাপারে নিজেদের মতো করেই সিদ্ধান্ত নিয়েছে এবং নিচ্ছে রাজ্য সরকারগুলি।

কোন রাজ্য কী অবস্থানে?

যে রাজ্যগুলি আগামী ২১ সেপ্টেম্বর স্কুল আংশিক ভাবে খুলছে না, সেগুলির মধ্যে রয়েছে গুজরাত, উত্তরপ্রদেশ, কেরল, উত্তরাখণ্ড, দিল্লি, গোয়া।

যে রাজ্যগুলি আগামী ২১ সেপ্টেম্বর স্কুল আংশিক ভাবে খুলছে, সেগুলির মধ্যে রয়েছে হরিয়ানা, জম্মু ও কাশ্মীর, অসম

(দেখে নিন এখানে: ২১ সেপ্টেম্বর থেকে নবম-দ্বাদশ শ্রেণির জন্য আংশিক স্কুল খুলতে পূর্ণাঙ্গ নির্দেশিকা জারি কেন্দ্রের)

বাকি রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলি এ বিষয়ে হয় এখনও কোনো সিদ্ধান্ত নেয়নি। অথবা আগেই ঘোষণা করেছে সেপ্টেম্বরে স্কুল খুলবে না।

পশ্চিমবঙ্গে কী পরিস্থিতি?

পরিস্থিতি স্বাভাবিক না-হলে এ রাজ্যে স্কুল-কলেজ খোলা হবে না বলে সাফ জানিয়ে দিয়েছে রাজ্য।

গত মঙ্গলবার নিজের বিধানসভা কেন্দ্রে কৃতী ছাত্রছাত্রীদের একটি সংবর্ধনাসভায় রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় জানান, “করোনা হুহু করে বাড়ছে। এই পরিস্থিতিতে কোনো ভাবেই এখন স্কুল খোলার কথা ভাবা যাবে না”।

(আরও পড়তে পারেন: কোভিড-১৯ মহামারির মধ্যে স্কুল খুললে আপনি কি নিজের সন্তানকে পাঠাবেন?)

তিনি বলেন, তাঁরা ছেলেমেয়েদের স্বাস্থ্য নিয়েই বেশি উদ্বিগ্ন। তবে পড়ুয়াদের কাছে কী করে পৌঁছনো যায়, কী ভাবে চালু রাখা যায় পড়াশোনা, সেগুলি দেখা দরকার। এবং তাঁরা সেটা দেখছেনও।

স্কুল খোলার আগে সন্তানকে জানান ৫টি প্রয়োজনীয় তথ্য

সংক্রমণের হার, সক্রিয় রোগীর সংখ্যা, সুস্থতার হার ইত্যাদি কতটা বাড়ল অথবা কমল, সে সব জটিল পরিসংখ্যান শিশুদের বোঝানো কোনো মতেই সম্ভব নয়। কিন্তু ভয়াবহ এই সমস্যা সম্পর্কে তাদের ন্যূনতম শিক্ষিত করে তোলার মাধ্যমেই সুরক্ষিত রাখার কৌশল নিতে হবে।

(বিস্তারিত পড়ুন এখানে: স্কুল খোলার আগে নিজের সন্তানকে এই ৫টি তথ্য অবশ্যই জানাবেন)

Continue Reading

দেশ

ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দির পরিদর্শনে বিএসএফ-এর ডিজি রাকেশ আস্থানা

রাকেশ আস্থানার নেতৃত্বে ৬ সদস্যের বিএসএফ প্রতিনিধিদল মন্দিরে পৌঁছেই প্রথমে পূজো দেন। তার পর মন্দির ঘুরে দেখেন।

Published

on

ঢাকেশ্বরী মন্দির পরিদর্শনে বিএসএফ দল।

ঋদি হক: ঢাকা

ঢাকায় অনুষ্ঠিত হচ্ছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি, BJB) এবং ভারতের সীমান্ত রক্ষিবাহিনী (বিএসএফ, BSF) মহাপরিচালক (ডিজি) পর্যায়ের বৈঠক।  বৃহস্পতিবার থেকে রাজধানী ঢাকার পিলখানায় বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) সদর দফতরে শুরু হয়েছে চার দিনব্যাপী বৈঠক। এতে যোগ দিতে বিএসএফ ডিজি রাকেশ আস্থানার নেতৃত্বে ৬ সদস্যের প্রতিনিধিদল বুধবার ঢাকায় পৌঁছোন।

ভারতের সীমান্তরক্ষী বাহিনীর মহাপরিচাল রাকেশ আস্থানা (Rakesh Asthana) শুক্রবার রাজধানীর ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দির (Dhakeshwari National Temple) পরিদর্শন করেন। বিজিবি, র‌্যাব এবং পুলিশ এই তিন বাহিনীর সমন্বয়ে কঠোর নিরাপত্তায় এ দিন সকাল সাড়ে নটা নাগাদ তিনি ঢাকেশ্বরী মন্দিরে পৌঁছোন এবং পুজো দেন।

মহানগর সার্বজনীন পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি শৈলেন্দ্রনাথ মজুমদার জানান, রাকেশ আস্থানার নেতৃত্বে ৬ সদস্যের বিএসএফ প্রতিনিধিদল মন্দিরে পৌঁছেই প্রথমে পূজো দেন। তার পর মন্দির ঘুরে দেখেন। কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে মি. আস্থানা আধ ঘন্টার মধ্যে পুজো এবং পরিদর্শন শেষে মন্দির ত্যাগ করেন।

এর আগে মন্দিরে পৌঁছোনোর পর অতিথিকে অভ্যর্থনা জানান বাংলাদেশ পুজো উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক নির্মল কুমার চ্যাটার্জি, মহানগর সার্বজনীন পূজা উদযাপন কমিটির সভাপিতি শৈলেন্দ্র নাথ মজুমদার, সাধারণ সম্পাদক আইনজীবী কিশোর কুমার মণ্ডল, দফতর সম্পাদক বিপ্লব দে ও দিলীপ ঘোষ প্রমুখ।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

দুর্গোৎসব বাংলাদেশে: মহালয়ায় মহামারি থেকে মুক্তির প্রার্থনা হাজারো ভক্তের

Continue Reading

দেশ

সাংসদদের বেতনে কোপ! কোভিড-১৯ পরিস্থিতিতে ব্যয় কমাতে বিল পাশ সংসদে

৩০ শতাংশ কমবে সাংসদদের বেতন।

Published

on

সংসদ ভবন। প্রতীকী ছবি

নয়াদিল্লি: কোভিড-১৯ (Covid-19) মহামারির জেরে উদ্ভূত পরিস্থিতিতে ব্যয় সংকোচনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। সেই লক্ষ্যেই সাংসদদের বেতন হ্রাসের বিল পাশ হল সংসদে। শুক্রবার সংসদের বাদল অধিবেশনে সাংসদদের বেতন ৩০ শতাংশ কমানোর বিলটি পাশ হল রাজ্যসভায়।

এ দিন রাজ্যসভায় ‘সংসদ সদস্যদের বেতন, ভাতা ও পেনশন (সংশোধনী) বিল, ২০২০’ পাশ হল। এর আগে গত মঙ্গলবার লোকসভায় এটি অনুমোদিত হয়।

নিম্নকক্ষে অনুমোদন পাওয়ার পর বৃহস্পতিবার সংসদের উচ্চকক্ষে বিলটি উত্থাপন করেন সংসদ বিষয়ক মন্ত্রী প্রহ্লাদ জোশী।

একই সঙ্গে রাজ্যসভা ‘মন্ত্রীদের বেতন ও ভাতা (সংশোধনী) বিল, ২০২০’ পাশ করেছে। ওই সংশোধনী কোভিড-১৯ মহামারির জেরে উদ্ভূত সংকট মোকাবিলায় এক বছরের জন্য মন্ত্রীদের বেতন এবং ভাতা ৩০ শতাংশ হ্রাস করার প্রস্তাব দিয়েছে।

স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী জি কিষান রেড্ডি বিলটি উত্থাপন করেন। দু’টি বিলই ধ্বনিভোটের মাধ্যমে পাশ হয়ে যায়।

আরও পড়তে পারেন: জিএসটি ক্ষতিপূরণের উপর সংসদে জিরো আওয়ার নোটিশ সিপিএমের

উল্লেখ্য, সম্প্রতি তথ্য জানার অধিকারে একটি প্রশ্নের জবাবে কেন্দ্র জানায়, বর্তমানে রাজ্যসভার ২২৬ জন সাংসদকে বেতন এবং ভাতা হিসেবে প্রতি মাসে দেওয়া খরচের পরিমাণ ২ কোটি ৯৯ লক্ষ ১৮ হাজার টাকা।

এমনটাও জানা যায়, লোকসভার প্রত্যেক সাংসদদের বেতন ও ভাতা দিতে সরকার ২০১৯ সালে ৩.৩ লক্ষ টাকা করে প্রতি মাসে খরচ করেছে।

Continue Reading
Advertisement
press conference by hindu mahajot
দুর্গা পার্বণ8 hours ago

দুর্গোৎসব বাংলাদেশে: সাংবাদিক বৈঠক ও মানববন্ধন করে ৩ দিন ছুটির দাবি

বিদেশ9 hours ago

টিকটক, উইচ্যাট নিয়ে কঠোর সিদ্ধান্ত আমেরিকার

coronavirus
রাজ্য9 hours ago

কলকাতা ও পড়শি জেলায় কোভিড পরিস্থিতি স্থিতিশীল, বেশি উদ্বেগ এখন পশ্চিম মেদিনীপুরকে ঘিরে

দেশ11 hours ago

সোমবার থেকে স্কুল খোলা বাধ্যতামূলক নয়, দেখে নিন কোন রাজ্য কী সিদ্ধান্ত নিল?

দেশ11 hours ago

ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দির পরিদর্শনে বিএসএফ-এর ডিজি রাকেশ আস্থানা

Durgapur Rain
পশ্চিম বর্ধমান11 hours ago

রেকর্ড বর্ষণে বিপর্যস্ত পশ্চিমাঞ্চলের তিন জেলা, জমা জলে নাজেহাল দুর্গাপুর

ভ্রমণ12 hours ago

৬ মাস বন্ধ থাকার পর খুলছে পশ্চিমবঙ্গের সমস্ত চিড়িয়াখানা ও জঙ্গল পর্যটন

Shreyas Iyer
ক্রিকেট12 hours ago

আইপিএলের অন্যতম সেরা বোলিং লাইনআপ কি দিল্লি ক্যাপিটাল্‌সের?

দেশ20 hours ago

কোভিড আপডেট: নতুন করে আক্রান্ত ৯৬৪২৪, সুস্থ ৮৭৮৭২

অরন্ধন
ব্র্ত-উৎসব3 days ago

অরন্ধনে নানা বিধ পদ রান্না করে নিবেদন করা হয় মা মনসাকে

covid in kolkata
কলকাতা2 days ago

আগস্টের তুলনায় সেপ্টেম্বরের প্রথম ১৫ দিনে কলকাতায় কমেছে নতুন কোভিডরোগীর সংখ্যা

শিল্প-বাণিজ্য16 hours ago

এসবিআই এটিএমে টাকা তোলার নিয়ম বদলে গেল! দেখে নিন ওটিপি-ভিত্তিক পদ্ধতির খুঁটিনাটি বিষয়

Covid situation kolkata
দেশ3 days ago

সক্রিয় কোভিডরোগীর নিরিখে পশ্চিমবঙ্গের অবস্থান কেরল, ওড়িশা, অসমেরও নীচে

Muthaiah Muralidaran
ক্রিকেট2 days ago

মাঁকড়ীয় আউটের বিকল্প বাতলে দিলেন মুতাইয়া মুরলীধরন

কলকাতা2 days ago

রবীন্দ্র সরোবরে করা যাবে না ছটপুজো, খারিজ কেএমডিএর আবেদন

Parliament
দেশ2 days ago

নতুন সংসদ ভবন নির্মাণের বরাত পেল টাটা

কেনাকাটা

কেনাকাটা2 days ago

ঘরের জায়গা বাঁচাতে চান? এই জিনিসগুলি খুবই কাজে লাগবে

খবরঅনলাইন ডেস্ক : ঘরের মধ্যে অল্প জায়গায় সব জিনিস অগোছালো হয়ে থাকে। এই নিয়ে বারে বারেই নিজেদের মধ্যে ঝগড়া লেগে...

কেনাকাটা1 week ago

রান্নাঘরের জনপ্রিয় কয়েকটি জরুরি সামগ্রী, আপনার কাছেও আছে তো?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরের এমন কিছু সামগ্রী আছে যেগুলি থাকলে কাজ করাও যেমন সহজ হয়ে যায়, তেমন সময়ও অনেক কম খরচ...

কেনাকাটা1 week ago

ওজন কমাতে ও রোগ প্রতিরোধশক্তি বাড়াতে গ্রিন টি

খবরঅনলাইন ডেস্ক : ওজন কমাতে, ত্বকের জেল্লা বাড়াতে ও করোনা আবহে যেটি সব থেকে বেশি দরকার সেই রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা...

কেনাকাটা2 weeks ago

ইউটিউব চ্যানেল করবেন? এই ৮টি সামগ্রী খুবই কাজের

বহু মানুষকে স্বাবলম্বী করতে ইউটিউব খুব বড়ো একটি প্ল্যাটফর্ম।

কেনাকাটা3 weeks ago

ঘর সাজানোর ও ব্যবহারের জন্য সেরামিকের ১৯টি দারুণ আইটেম, দাম সাধ্যের মধ্যে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ঘর সাজাতে কার না ভালো লাগে। কিন্তু তার জন্য বাড়ির বাইরে বেরিয়ে এ দোকান সে দোকান ঘুরে উপযুক্ত...

কেনাকাটা4 weeks ago

শোওয়ার ঘরকে আরও আরামদায়ক করবে এই ৮টি সামগ্রী

খবর অনলাইন ডেস্ক : সারা দিনের কাজের পরে ঘুমের জায়গাটা পরিপাটি হলে সকল ক্লান্তি দূর হয়ে যায়। সুন্দর মনোরম পরিবেশে...

kitchen kitchen
কেনাকাটা1 month ago

রান্নাঘরের এই ৮টি জিনিস কাজ অনেক সহজ করে দেবে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আজকাল রান্নাঘরের প্রত্যেকটি কাজ সহজ করার জন্য অনেক উন্নত ব্যবস্থা এসে গিয়েছে। তা হলে ঘণ্টার পর ঘণ্টা কষ্ট...

care care
কেনাকাটা1 month ago

চুল ও ত্বকের বিশেষ যত্নের জন্য ১০০০ টাকার মধ্যে এই জিনিসগুলি ঘরে রাখা খুবই ভালো

খবরঅনলাইন ডেস্ক : পার্লার গিয়ে ত্বকের যত্ন নেওয়ার সময় অনেকেরই নেই। সেই ক্ষেত্রে বাড়িতে ঘরোয়া পদ্ধতি অনেকেই অবলম্বন করেন। বাড়িতে...

কেনাকাটা1 month ago

ঘর ও রান্নাঘরের সরঞ্জাম কিনতে চান? অ্যামাজন প্রাইম ডিলে রয়েছে ৫০% পর্যন্ত ছাড়

খবরঅনলাইন ডেস্ক : অ্যামাজন প্রাইম ডিলে রয়েছে ঘর আর রান্না ঘরের একাধিক সামগ্রিতে প্রচুর ছাড়। এই সেলে পাওয়া যাচ্ছে ওয়াটার...

কেনাকাটা1 month ago

এই ১০টির মধ্যে আপনার প্রয়োজনীয় প্রোডাক্টটি প্রাইম ডে সেলে কিনতে পারেন

খবরঅনলাইন ডেস্ক : চলছে অ্যামাজনের প্রাইমডে সেল। প্রচুর সামগ্রীর ওপর রয়েছে অনেক ছাড়। ৬ ও ৭  তারিখ চলবে এই সেল।...

নজরে