এ বার গোয়ায় তৃণমূলের ‘খেলা’? আপত্তি নেই মুখ্যমন্ত্রী প্রমোদ সাওয়ন্তের

0
প্রমোদ সাওয়ন্ত, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রতীকী ছবি

বছর ঘুরলেই বিধানসভা ভোট গোয়ায়। সেখানেও কি তৃণমূলের ‘খেলা হবে’? মুখ্যমন্ত্রী প্রমোদ সাওয়ন্তের প্রতিক্রিয়া ‘ওদের আসতে দিন’।

পানাজি: এ বার নাকি গোয়াতেও ‘খেলা হবে’! উপকূলীয় রাজ্যের বিধানসভা ভোটে তৃণমূল কংগ্রেস প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারে এমন খবরের মধ্যে, গোয়ার মুখ্যমন্ত্রী প্রমোদ সাওয়ন্তের প্রতিক্রিয়া, “ওদের আসতে দিন”।

জানা গিয়েছে, গোয়ার আসন্ন বিধানসভা ভোটে ছোঁয়া থাকতে পারে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের তৃণমূল কংগ্রেসের। সেখানে সম্ভাব্য উপস্থিতি তৈরি করতে প্রস্তুতি নিচ্ছে ঘাসফুল শিবির।

সংবাদ সংস্থা এএনআই বেশ কয়েকজন বিরোধী রাজনৈতিক নেতার মন্তব্যের রেশ টেনে জানিয়েছে, ২০২২ সালের শুরুতে গোয়া বিধানসভা নির্বাচনে অংশ নেওয়ার সম্ভাবনা সম্পর্কে তাঁদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছে তৃণমূল। টিকিট দেওয়া নিয়েও সম্ভাব্য আলোচনা হয়েছে। তবে গোয়ার নির্বাচনী ময়দানে আরেকটি রাজনৈতিক দলের যোগদান নিয়ে চিন্তিত নন গোয়ার মুখ্যমন্ত্রী।

গোয়া বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারে এমন রিপোর্ট সম্পর্কে জানতে চাইলে প্রমোদ জবাব দেন, “সবাই আসুক, সবাই গোয়াকে ভালোবাসে”।

সূত্রের খবর, দু’বারের প্রাক্তন কংগ্রেস বিধায়ক অ্যাঞ্জেলো ফার্নান্ডেজ-সহ আরও কয়েক জনের সঙ্গে যোগাযোগ করেছেন তৃণমূল নেতৃত্ব। তালিকায় রয়েছেন আরও এক বিধায়ক।

ফার্নান্ডেজ বলেন, “আমাকে দলে যোগ দেওয়ার ইঙ্গিত দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু আমি তো কংগ্রেসেই রয়েছি। ফলে এ ধরনের আলোচনায় আপাতত আগ্রহ নেই”।

সংবাদ মাধ্যমের খবর অনুয়ায়ী, যাঁদের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়েছে, তাঁদের মধ্যে রয়েছেন বিধায়ক লুইজিনহো ফালেইরো। তৃণমূলে সম্ভাব্য যোগদানকারী হিসেবে তাঁর নাম নিয়ে জোর চর্চা চলছে। তবে ফালেইরো বলেছেন, “অনেক লোক সমীক্ষা করছেন। তাঁরা অনেক নেতার সঙ্গে দেখা করছেন”।

এই নিয়ে দ্বিতীয় বার গোয়ায় নিজের জমি শক্ত করার উদ্যোগ নিয়েছে তৃণমূল। এর আগে ২০১২ সালে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ড. উইলফ্রেড ডি সুজা দলের প্রধান হিসেবে নিযুক্ত হন। কিন্তু পরবর্তীকালে অনুষ্ঠিত বিধানসভা নির্বাচনে সাফল্য পেতে ব্যর্থ হন তিনি।

জানা গিয়েছে, প্রশান্ত কিশোরের সংস্থা আই-প্যাক গোয়ার রাজনৈতিক পরিবেশ মূল্যায়ন করছে। যা সে রাজ্যে তৃণমূলের জমি শক্ত করার প্রস্তুতি হিসেবেই বিবেচিত হচ্ছে। সংস্থার প্রতিনিধিরা রাজনীতিবিদ, সাংবাদিক, সমাজকর্মী, ব্যবসায়ী এবং রাজ্যের একটি অংশের মানুষের সঙ্গে দেখা করেছেন।

উল্লেখযোগ্য আরও কিছু খবর পড়তে পারেন এখানে

পুজোর পরেই খুলতে পারে কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়, পড়ুয়াদের দ্রুত টিকাকরণের নির্দেশ

স্বস্তি! দুটোর আশংকা থাকলেও সামনের সপ্তাহে একটি নিম্নচাপেরই সম্ভাবনা, সে সম্ভবত ওড়িশামুখী

কেরলে বাড়ায় দেশেও ৩২ হাজারে পৌঁছোল দৈনিক সংক্রমণ, সামান্য কমল সক্রিয় রোগী

ওয়াশিংটনে পৌঁছোতেই প্রবাসী ভারতীয়দের উষ্ণ অভ্যর্থনা পেলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

রায়গঞ্জে ভয়াবহ পথ দুর্ঘটনা, নয়ানজুলিতে বাস পড়ে যাওয়ায় মৃত্যু ৬ জনের

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন