rape

ওয়েবডেস্ক: একটা ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই উত্তরপ্রদেশের উন্নাও ফের খবরের শিরোনামে উঠে এল আরও একটি চাঞ্চল্যকর ধর্ষণ মামলায়। অভিযোগ, উন্নাওয়ের সফিপুর এলাকায় এক মহিলাকে ধর্ষণ করেন স্থানীয় এক কাউন্সিলার। কিন্তু দু’মাস পরে পুলিশ অভিযোগ দায়ের করে।

নির্যাতিত মহিলা জানিয়েছেন, ইমরান নামের এক কাউন্সিলার এবং তার সঙ্গীরা এই ঘটনায় যুক্ত। কিন্তু অভিযোগ দায়ের করলে ধর্ষণের ভিডিও ছড়িয়ে দেওয়া হবে, এমন ভয় দেখানোয় তিনি মুখ খুলতে পারছিলেন না।

পুলিশ অবশ্য জানিয়েছে, মহিলার অভিযোগ গ্রহণ করা হয়েছে। যাবতীয় তথ্যপ্রমাণ জোগাড়ের কাজ দ্রুত গতিতে চলছে। অভিযোগ প্রমাণিত হলে অপরাধীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

জানা গিয়েছে, অভিযুক্ত সমাজবাদী পার্টির স্থানীয় নেতা। তাঁর বিরুদ্ধে ২০১৭ সালের অক্টোবর মাসে শফিপুর থানায় অভিযোগ করা হয়ে। কিন্তু তদন্তের কাজ বিন্দুমাত্র এগোয়নি। অবশেষে নির্যাতিতা মহিলা উন্নাওর এসপির কাছে গত শনিবার অভিযোগ দায়ের করলে বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে। মহিলার অভিযোগ, ওই বছরের মে মাসে তাঁকে ধর্ষণ করে ইমরান এবং তার সঙ্গীরা।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন